নয়াদিল্লি: সার্জিক্যাল স্ট্রাইক, এয়ার স্ট্রাইক ভারত সরকারের একাধিক জঙ্গী দমন কার্যকলাপের কারণে জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত দোভাল ও তার পরিবারের সদস্যরা জঙ্গীদের নিশানায় রয়েছেন৷ অজিতের ছেলে সৌর্য দোভালকে বেশ কয়েকবার হুমকিও দিয়েছে জঙ্গীরা৷ এরপরই সৌর্যকে ‘Z ক্যাটাগরির’ নিরাপত্তা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল মোদী সরকার৷

Z ক্যাটাগরির নিরাপত্তা পাওয়ার জন্য এবার থেকে দেশের যে কোনও প্রান্তেই সৌর্য যাবেন সঙ্গে থাকবে ১৫-১৬ জন স্পেশাল কমান্ডো৷ গোয়েন্দা সূত্রের একটি রিপোর্ট পাওয়ার পরই ভারত সরকারে পক্ষ থেকে সৌর্যকে মোবাইল সিকিউরিটি দেওয়ার কথা ভাবা হয়৷ এরপরই সরাষ্ট্রমন্ত্রক থেকে নির্দেশ দেওয়া হয়, সেন্ট্রাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল সিকিউরিটি ফোর্স(CISF) এর কমান্ডোরা থাকবেন অজিতের ছেলের সুরক্ষার জন্য৷ সৌর্য এই মুহূর্তে একটি পলিটিক্যাল ফাউন্ডেশনের প্রধান৷ সংস্থাটির ওয়েবসাইট অনুসারে তারা ‘ভারতীয় রাজনীতির সুযোগ, ইস্যু এবং চ্যালেঞ্জ’-এর মতো বিষয় নিয়ে কাজ করে৷

আরও পড়ুন: মোদী ফের ক্ষমতায় না এলে আত্মহত্যা করব: ওয়াসিম রিজভি

তবে শুধু জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টার ছেলেই নন পাশাপাশি নিরাপত্তা বৃদ্ধির তালিকায় নাম রয়েছে বাংলার বিজেপির ১০ নেতা ও প্রার্থীর৷ মঙ্গলবারই নির্দেশ জারি করেছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক৷ লাগু হয়েছে বাড়তি সুরক্ষাও৷কারা কারা রয়েছেন এই বাড়তি নিরাপত্তার তালিকার? প্রথমেই রয়েছেন তৃণমূল থেকে বিজেপিতে নাম লেখানো এক সাংসদ ও বিধায়কের৷ দুজনেই এবার পদ্ম শিবিরের হয়ে ভোট ময়দানে প্রার্থী৷ অনুপম হাজরা ও অর্জুন সিং৷ যাদবপুরের প্রার্থী অনুপম ও বারাকপুরের বিজেপি প্রার্থী অর্জুন সিং৷ দুজনকেই এবার ‘Y+’ ক্যাটাগরির নিরাপত্তার আওতায় থাকবেন৷ সেন্ট্রাল আর্মড প্যারামিলিটারি ফোর্স তাদের চারপাশে থাকবে৷

আরও পড়ুন: মোদীই ফিরতে পারেন ক্ষমতায়, ভবিষ্যদ্বাণী চিনা সংবাদ মাধ্যমের

‘Y+’ ক্যাটাগরির নিরাপত্তা থাকছে এসএস আলুওয়ালিয়া, ভারতী ঘোষ ও নিশীথ প্রামানিকেরও৷ পাঁচ থেকে ৬ জন সেন্ট্রাল আর্মড প্যারামিলিটারি ফোর্স তাদের ঘিরে থাকবেন৷ এসএস আলুওয়ালিয়া বিদায়ী মোদী মন্ত্রীসভার সদস্য৷ ভারতী ঘোষ প্রাক্তন আইপিএস অফিসার৷ পশ্চিম মেদিনীপুরের এসপি থাকাকালীন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের খুবই ঘনিষ্ট ছিলেন৷ বিজেপি নেতা সিদ্ধার্থ শঙ্কর দাসকেও বিশেষ নিরাপত্তা বলয়ের আওতায় আনা হয়েছে৷

উত্তর ২৪ পরগনার বনগাঁ কেন্দ্রে মতুয়া সম্প্রদায় নির্ণায়ক শক্তি৷ এবার এই কেন্দ্র থেকে ভোটে বিজেপির বাজি প্রয়াত বড়মার ছোট নাতি শান্তনু ঠাকুর৷ তাঁকেও ‘Y’ ক্যাটাগরির নিরাপত্তা দেওয়া হয়েছে৷ তৃণমূল থেকে বিজেপিতে নাম লেখানো বাগদার প্রাক্তন বিধায়ক দুলাল বর ও প্রাক্তন সিপিএম বিধায়ক গেন মুর্মুকে দেওয়া হচ্ছে ‘Z’ ক্যাটাগরির নিরাপত্তা৷ এদের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকবে দুজন সেন্ট্রাল আর্মড প্যারামিলিটারি ফোর্স৷তবে এই নিরাপত্তা সাময়িক বলে জানিয়েছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক৷ নির্বাচনী পক্রিয়া শেষ হওয়া পর্যন্তই থাকবে এই বিশেষ নিরাপত্তা৷