নয়াদিল্লি: ‘দেখতে দেখতে তিনটে বছর একসঙ্গে কাটিয়ে ফেললাম, কিন্তু মনে হচ্ছে যেন তিরিশ বছর।’ ঠিক এভাবেই তৃতীয় বিবাহবার্ষিকীতে স্ত্রী হ্যাজেল কিচকে শুভেচ্ছা জানালেন জাতীয় দলের প্রাক্তন ক্রিকেটার যুবরাজ সিং। শনিবার তাঁদের তৃতীয় বিবাহবার্ষিকী উপলক্ষ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইনস্টাগ্রামে হ্যাজেল কিচের সঙ্গে একটি ছবি পোস্ট করেন ২০১১ বিশ্বকাপের নায়ক।

সেখানে ক্যাপশন হিসেবে যুবরাজ লেখেন, ‘মুবারক হো বিবি। তিন বছর একসঙ্গে কাটিয়ে মনে হচ্ছে যেন তিরিশ বছর কাটিয়ে ফেললাম। হ্যাপি অ্যানিভার্সারি মাই লাভ।’ এরপর স্বাভাবিকভাবেই অনুরাগীদের একের পর এক শুভেচ্ছাবার্তা ভেসে আসতে থাকে সেই ছবিতে। তবে যুবরাজ-হ্যাজেলের শুভানুধ্যায়ীদের তালিকায় ছিলেন কয়েকজন সেলেব ক্রিকেটারও। যার মধ্যে অন্যতম শনিবাসরীয় অ্যাডিলেডে সপ্তম অস্ট্রেলীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে ত্রিশতরানকারী ডেভিড ওয়ার্নার। ভারতীয় ক্রিকেটার দম্পতির ছবিতে ওয়ার্নার লেখেন, ‘সো কিউট।’

এছাড়াও যুবরাজের সেই ছবিতে কমেন্ট করে তাঁদের বিবাহবার্ষিকীর শুভেচ্ছা জানান ‘হিটম্যান’ রোহিত শর্মা। যুবরাজ-হ্যাজেলকে শুভেচ্ছার জানানোর তালিকায় আরও অনেক তারকাই। ছিলেন যুবরাজের দুই প্রাক্তন সতীর্থ হরভজন সিং ও শিখর ধাওয়ান। ছিলেন বলি তারকা ফারহান আখতার, বিপাশা বসুরাও। তবে সবার শুভেচ্ছার মাঝেও ওয়ার্নারের কমেন্টটি মনে ধরে অনুরাগীদের।

উল্লেখ্য, অস্ট্রেলিয়ার সপ্তম ব্যাটসম্যান হিসেবে এদিন টেস্টে ট্রিপল সেঞ্চুরি করেন ওয়ার্নার৷ ব্র্যাডম্যান ও মার্ক টেলরকে টপকে অস্ট্রেলিয়ার মধ্যে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ স্কোর করেন বাঁ-হাতি এই ওপেনার৷ অজি ব্যাটসম্যান হিসেবে সর্বোচ্চ টেস্ট স্কোর রয়েছেন ম্যাথু হেডেনের ৩৮০ রান৷ তবে ওয়ার্নার এদিন আরও রেকর্ড ভাঙেন। পিঙ্ক বল টেস্টে তিনিই এখন সর্বাধিক রানসংগ্রহকারী। পাকিস্তানের আজহার আলির ৪৫৬ রানকে টপকে যান ওয়ার্নার। এর আগে দিন-রাতের টেস্টে ওয়ার্নারের আহামরি ছিল না৷ ২৪.৮৭ গড়ে করেছিলেন ১৯৯ রান। কিন্তু অপরাজিত ট্রিপল সেঞ্চুরির পর তিনিই এক নম্বরে উঠে আসেন বাঁ-হাতি অজি ওপেনার।

অন্যদিকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের পর যুবরাজ মজে বিভিন্ন দেশে ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট লিগ খেলতে। কানাডায় গ্লোবাল টি-২০ লিগের পর সম্প্রতি আবু ধাবিতে টি-১০ লিগে চ্যাম্পিয়ন দলের সদস্য হিসেবে নজর কেড়েছেন যুবরাজ।