ফাইল ছবি

নয়াদিল্লি: গতি বাড়াচ্ছে করোনা। এবার উত্তর-পূর্বের রাজ্যেও করোনার থাবা। মনিপুরের ২৩ বছরের এক তরুণীর শরীরে মিলল মারণ করোনার জীবাণু। এই প্রথম উত্তর-পূর্বের কোন রাজ্যে করোনাই আক্রান্ত হওয়ার খোঁজ মিলল। মারন ভাইরাসের মোকাবিলায় সবরকম ব্যবস্থা নিচ্ছে মনিপুর প্রশাসন।

দেশজুড়ে করণায় পাঁচশোরও বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। প্রতিদিনই আক্রান্ত মানুষের সংখ্যা বাড়ছে। এখনো পর্যন্ত সবথেকে মানু বেশিষ আক্রান্ত হয়েছেন মহারাষ্ট্রে মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত মহারাষ্ট্রে ১০১ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। রাজ্যজুড়ে লকডাউন জারি রেখেছেন মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে। মহারাষ্ট্রের পর কেরালায় সবচেয়ে বেশি মানুষ করণায় আক্রান্ত হয়েছেন.

সোমবার নতুন করে কেরালায় 28 জনের শরীরে করোনার জীবাণু মিলেছে। মঙ্গলবার সকালে করে আরো দুইজন আক্রান্তের হদিশ মিলেছে। এরই পাশাপাশি করোনা প্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে গুজরাটেও। মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত মোদী রাজ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৩৩। এদিন সকালেও গুজরাতে দুজন করোনা আক্রান্তের হদিস মেলে। রাজস্থান থাবা বসিয়েছে মান করো না.

সকাল পর্যন্ত রাজস্থান থেকে ৩২ জন কারণ আক্রান্ত রোগীর সন্ধান মিলেছে। প্রত্যেককেই আইসোলেশন রেখে চিকিৎসা করছে অশোক দেহলতা সরকার। গোটা দেশজুড়ে কাঁপুনি ধরিয়েছে মারণ করোনা। পরিস্থিতি মোকাবিলায় কোমর বেঁধে কাজ করছে কেন্দ্র রাজ্য সরকারগুলি। ইতিমধ্যেই দেশের ৩২ রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। দেশের ৫৬০ জেলায় লকডাউন চলছে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

জীবে প্রেম কি আদৌ থাকছে? কথা বলবেন বন্যপ্রাণ বিশেষজ্ঞ অর্ক সরকার I।