নয়াদিল্লি: ইয়েস ব্যাংকের গ্রাহকদের জন্য সুখবর। শীঘ্রই এই বেসরকারি ব্যাঙ্ক থেকে টাকা তোলার ঊর্ধ্বসীমা তুলে নেওয়া হচ্ছে৷ আর্থিক সমস্যায় ধুঁকতে থাকা ইয়েস ব্যাংকের গ্রাহকদের আর্থিক লেনদেনের উপর নিয়ন্ত্রণ জারি করেছিল রিজার্ভ ব্যাঙ্ক ৷

বেসরকারি এই ব্যাঙ্কের গ্রাহকরা ঘোর দুশ্চিন্তায় পড়েছিলেন৷ এবার সেই গ্রাহকদের স্বস্তির খবর শোনালেন খোদ কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। শীঘ্রই ইয়েস ব্যাঙ্ক থেকে টাকা তোলার ক্ষেত্রে ঊর্ধ্বসীমা প্রত্যাহার করে নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন তিনি৷

গত কয়েক মাস ধরে ভয়ঙ্কর আর্থিক সংকটে ধুঁকছিল ইয়েস ব্যাঙ্ক৷ এরপরই বেসরকারি এই ব্যাঙ্কের গ্রাহকদের স্বার্থ সুরক্ষিত করতে আসরে নামে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক৷ তড়িঘড়ি করা হয় পদক্ষেপ৷ ইয়েস ব্যাঙ্ক থেকে টাকা তোলার ঊর্ধ্বসীমা বেঁধে দেয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক৷ ৫০ হাজার টাকার বেশি তোলা যাবে না, এই মর্মে আগামী এক মাসের জন্য নির্দেশিকা জারি করে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক৷

কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ সেই সময় জানান, ইয়েস ব্যাংকের ব্যর্থতার পিছনে রয়েছে বেশ কিছু কর্পোরেট সংস্থাকে দেওয়া ঋণের অর্থ আদায় না হওয়ায়৷ সেই সব সংস্থাগুলির মধ্যে রয়েছে অনিল আম্বানির গোষ্ঠী, এসেল গ্রুপ, ডিএইচএফ এল,আইএলঅ্যান্ডএফএস এবং ভোডাফোন৷

ইয়েস ব্যাঙ্ক বাঁচাতে স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার সাহায্য নেওয়া হয়৷ স্টেট ব্যাঙ্ক ইয়েস ব্যাঙ্কের ৪৯ শতাংশ শেয়ার কিনে নেবে বলে জানানো হয়৷ শুক্রবার কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী জানান, আগামী তিন দিনের মধ্যে ইয়েস ব্যাঙ্ক থেকে টাকা তোলার উপর নিয়ন্ত্রণ তুলে নেওয়া হবে।

ইয়েস ব্যাংকের নতুন বোর্ড অব ডিরেক্টরস গঠনের কথাও ঘোষণা করেন অর্থমন্ত্রী। নয়া সেই বোর্ডে স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার দুই অধিকর্তাকে রাখা হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। সরকারিভাবে বিজ্ঞপ্তি জারির সাত দিনের মধ্যেই তাঁরা দায়িত্ব নেবেন বলেও জানিয়েছেন তিনি।