এডেন: অল্পের জন্য প্রাণে বাঁচলেন ইয়েমেনের প্রধানমন্ত্রী-সহ ইয়েমেনি মন্ত্রিসভার বেশ কয়েকজন। ইয়েমেনের এডেনের একটি হোটেলে ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় এক হামলায় অন্তত ১৮ জন নিহত হয়েছেন বলে দাবি করল আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলি। এডেন শহরের পশ্চিমাংশে অবস্থিত কাসর হোটেলের প্রবেশ পথে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা হয়েছে। (ব্রিটিশ গুপ্তচরেরা আপনার স্মার্টফোন হ্যাক করতে পারে: স্নোডেন)

নিহতদের মধ্যে বেশিরভাগই হোটেলটির নিরাপত্তারক্ষী ও পাহারায় নিযুক্ত সংযুক্ত আরব আমিরশাহির সেনা বলে মনে করা হচ্ছে। ইয়েমেনের প্রধানমন্ত্রী খালেদ বাহা-সহ সে দেশের আরও বেশ কয়েকজন রাষ্ট্রনেতা ওই হোটেলে বিস্ফোরণের সময় উপস্থিত ছিলেন। হামলার পরপরই প্রধানমন্ত্রী বাহা-সহ বাকি কর্তাদের হেলিকপ্টারে করে অক্ষত অবস্থায় অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, হোটেলটিতে এখনও আগুন জ্বলছে এবং সেখানে বহু অ্যাম্বুলেন্স এখনও চলাচল করছে।

অন্যদিকে, সৌদি বাহিনী ইয়েমেনের বিভিন্ন এলাকায় বর্বরোচিত আগ্রাসনের বিরুদ্ধে আনসারুল্লাহ বাহিনী এডেন শহরের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে।  সর্বশেষ খবর অনুযায়ী, এডেন প্রদেশের আল মানসুরা এলাকায় পলাতক প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট আব্দরাব্বু মানসুর হাদির অনুগত বাহিনী এবং ইয়েমেন বাহিনীর মধ্যে তীব্র সংঘর্ষ চলছে। মঙ্গলবার ইয়েমেন সেনাবাহিনী এডেন প্রদেশের রা’সালআরাহ এলাকায় ব্যপক সাফল্য পেয়েছে বলে খবর পাওয়া গিয়েছে। (২৬/১১-র পরেই লাহোরে হামলা করতে চেয়েছিল ভারতীয় বায়ুসেনা)

blast