নিউইয়র্ক: একই মাসের মধ্যে উত্থান-পতন! দিন দশেক আগেই ফোর্বস ম্যাগাজিনের বিচারে বিশ্বের সবচেয়ে ধনী ফুটবল হয়েছিলেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো৷ দ্বিতীয় স্থানে ছিলেন লিওনেল মেসি৷ কিন্তু ফোর্বসের সর্বশেষ রেটিংয়ে পর্তুগাল ফুটবল তারকাকে পিছনে ফেলে আয়ের নিরিখে শীর্ষে উঠে এসেছেন আর্জেন্তাইন তারকা ফুটবলার৷

মেসি না রোনাল্ডো এই বিতর্ক বরাবরের। এবার আয়ের দিক দিয়ে সম্প্রতি সাপ-লুডোয় খেলায় মাততে দেখা গেল ফুটবল বিশ্বের দুই তারকাকে৷ চলতি মাসের শুরুতে সেমির বার্সা ছাড়ার সম্ভাবনার মধ্যে বার্ষিক আয়ের ভিত্তিতে বিশ্বের ধনী ফুটবলার হয়েছিলেন রোনাল্ডো৷ কিন্তু বার্সেলোনার সঙ্গে নতুন চুক্তিতে পর্তুগিজ তারকাকে টপকে উপরে উঠে এলেন মেসি।

ফোর্বসের তালিকায় ২০২০ সালের সর্বোচ্চ উপার্জনকারী ফুটবলার হিসেবে শীর্ষস্থানে উঠে এসেছেন তিনি। আর্জেন্তাইন ফুটবল রাজপুত্র মোট ১০০ কোটি মার্কিন ডলার রোজগার করেছেন। কিন্তু গত জুন মাসে এই ম্যাজিক ফিগার স্পর্শ করেছিলেন রোনাল্ডো। সম্প্রতি ফোর্বস ম্যাগাজিন ধনী ক্রীড়াবিদদের যে তালিকা প্রকাশ করেছে তাতে দেখা গিয়েছে, মেসির বার্ষিক আয় ১২৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার (৯৭.২ মিলিয়ন পাউন্ড)৷ আর দ্বিতীয়স্থানে থাকা রোনান্ডোর বার্ষিক আয় ১১৭ মিলিয়ন মার্কিন ডলার (৯০.৩ মিলিয়ন পাউন্ড)।

এবারই প্রথম দ্বিতীয় ফুটবলার হিসেবে আয়ের দিক দিয়ে বিলনিয়ারের ঘরে প্রবেশ করেছেন মেসি। এর আগে প্রথম ফুটবলার হিসেবে এই অঙ্ক স্পর্শ করেছিলেন রোনাল্ডো। মেসি-রোনাল্ডোর পর সর্বোচ্চ আয়ের দিক দিয়ে তৃতীয় স্থানে রয়েছেন পিএসজি-র ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড নেইমার। আর চার নম্বরে রয়েছেন পিএসজি-তে তাঁর সতীর্থ কিলিয়ান এমবাপ্পে।

প্রথম ১০ জনের মধ্যে রয়েছেন তিন ইংলিশ প্রিমিয়র লিগ তারকা মোহামদ সালাহ, পল পগবা ও ডেভিড ডি’গিয়া। এছাড়া তালিকায় অষ্টম স্থানে রয়েছেন রিয়াল মাদ্রিদের ওয়েলস ফরোয়ার্ড গ্যারেথ বেল। ২০১৯-২০ মরশুমে তেমন ফর্মে থাকলেও তাঁর আয় ২৯ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। লিভারপুল তারকা সালাহ সর্বোচ্চ আয়ের নিরিখে রয়েছেন পঞ্চম স্থানে। পরের স্থান দখল করেছেন ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেড মিড-ফিল্ডার পগবা। দশম স্থানে ওল্ড ট্রাফোর্ডের গোলরক্ষক ডি’গিয়া।

বার্সেলোনার ফরাসি ফরোয়ার্ড আঁতোয়া গ্রিজম্যান আছেন সাতে এবং নবম স্থানে বায়ার্ন মিউনিখের রবার্ট লেভানডোভস্কি। ২০১৯ সালেও সর্বোচ্চ আয়ে সেরা তিনে ছিলেন মেসি, রোনাল্ডো ও নেইমার। তবে বড় লাফ দিয়েছেন এমবাপ্পে। এক বছরের ব্যবধানে সাত থেকে ওঠে এসেছেন চারে।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।