স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: কংগ্রেসের পার্টি অফিস ফেরত দিয়ে আন্তরিকতা প্রমাণ করুন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ২১ শে জুলাই তৃণমূল নেত্রীর ভাষণ শোনার পর এমনই মন্ত্যব্য করলেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র। তিনি জানিয়েছেন, কংগ্রেসের যে পার্টি অফিসগুলো তৃণমূল দখল করেছে তার তালিকা তিনি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে পাঠাবেন।

রবিবার একুশের মঞ্চ থেকে বিজেপিকে আগাগোড়া আক্রমণ করেছেন তৃণমূল নেত্রী। তিনি বলেন, বিজেপি ক্ষমতায় আসার পর তাঁদের পার্টি অফিসগুলো দখল করে নিয়েছে। এই বক্তব্যের প্রেক্ষিতেই মমতাকে আক্রমণ করেছে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি।

পার্টি অফিস দখলের সংস্কৃতি যে মমতার দলের আমদানি তা স্মরণ করিয়ে দিলেন সোমেন মিত্র বলেন, “আপনি বলছেন- বিজেপি আপনাদের অফিস দখল করছে। আপনাদের দলের জন্মলগ্ন থেকে কংগ্রেসের যে সব অফিস দখল করেছন, তার একটা তালিকা আপনাকে পাঠাব, সেই অফিসগুলো ফেরত প্রথমে দিয়ে আপনার আন্তরিকতা প্রমান করুন।”

এদিন বিজেপিকে আক্রমণের পাশাপাশি কংগ্রেস-সিপিএমকেও সতর্ক করলেন মমতা বন্দ্যোপাধায়। সিপিএম-কংগ্রেসের উদ্দেশ্য তৃণমূল নেত্রী বলেন, ওরা বিজেপির বিরুদ্ধে লড়ছে না। আপনাদের সমর্থন চাই না। কিন্তু যে ডালে বসে রয়েছেন তা কাটবেন না।

এই প্রসঙ্গে সোমেন মিত্র বলেন, “তিনি আরও বলেন, “কংগ্রেস জন্মলগ্ন থেকেই এই বিভাজনের রাজনীতির বিরুদ্ধে আদর্শের লড়াই লড়ছে। আপনার কাছে আমরা বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াই শিখবো না।”

তাঁর কথায়, “বিজেপি লোকসভা থেকে সারা দেশে গণতন্ত্র ভুলিয়ে দিচ্ছে এটা একদম সত্যি কথা কিন্তু বিধানসভায় যখন আলোচনা না করেই স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের বাজেট গিলোটিনে পাঠিয়ে দেওয়া হয় , তখন আপনার গণতন্ত্র কোথায় থাকে?” প্রদেশ সভাপতির পরামর্শ, “কংগ্রেসকে নিয়ে আপনাকে ভাবতে হবে না ? আপনি নিজেকে নিয়ে ভাবুন।”

এদিন একই কথা শোনা গিয়েছে লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা অধীর চৌধুরীর মুখেও। তৃণমূলনেত্রীর উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, “কংগ্রেসকে নিয়ে ভাবতে হবে না ওনাকে। কংগ্রেস দুর্বল হয়েছে ঠিকই, কিন্তু তাঁদের দলের নীতি-নৈতিকতা আছে। তাই কংগ্রেস ঘুরে দাঁড়াবেই। কংগ্রেস ডাল কাটছে না, বরং দিদিভাই আপনিই গাছের গোড়া কেটে বসে আছেন। আপনি আপনার দল নিয়ে ভাবুন। কংগ্রেসকে নিয়ে ভেবে কালক্ষেপ করার দরকার নেই। ওটা আমাদের ভাবতে দিন।”