স্টাফ রিপোর্টার, বারুইপুর: বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক জেনে ফেলায় স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে খুনের অভিযোগ উঠল স্বামীর বিরুদ্ধে। দক্ষিণ ২৪ পরগণার বারুইপুর থানার হাড়দহ গ্রামের মাঝেরহাট এলাকার ঘটনা। মৃতের নাম মধুমিতা ঢালি (২৭)। অভিযুক্ত স্বামী সুশান্ত ঢালি ঘটনার পর থেকেই পলাতক।

স্থানীয় সূত্রে খবর, দশ বছর আগে পেশায় রাজমিস্ত্রী সুশান্তর সঙ্গে জীবনতলা থানার মৌখালীর বাসিন্দা মধুমিতার বিয়ে হয়৷ তাদের দুটি সন্তানও রয়েছে। কিন্তু প্রায় বছর খানেকের বেশি সময় ধরে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে সম্পর্কের অবনতি হতে থাকে। সুশান্তর বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক রয়েছে বলে অভিযোগ তোলেন মধুমিতা।

আর তা নিয়েই সংসারে অশান্তি চরমে পৌঁছয়। মঙ্গলবার রাতে খাওয়াদাওয়ার সময় দুজনের মধ্যে বচসা বাঁধে। তার পরেই মধুমিতাকে শ্বাসরোধ করে খুন করে ঘরের মধ্যে ঝুলিয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ ওঠে। বুধবার সকালে মধুমিতার বাপের বাড়িতে ফোন করে জানানো হয় তাদের মেয়ের ডাইরিয়া হয়েছে হাসপাতালে ভর্তি। মৃতার বাপের বাড়ির লোকজন হাসপাতালে এসে দেখেন মধুমিতার গলায় ফাঁসের চিহ্ন।

তাদের অভিযোগ, মধুমিতাকে খুন করা হয়েছে। অভিযোগের তির মধুমিতার স্বামী সুশান্তর দিকেই। খবর পেয়ে বারুইপুর থানার পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নিয়ে যায়। এই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়। তবে ঘটনার পর থেকেই পলাতক অভিযুক্ত সুশান্ত ঢালি। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে বারুইপুর থানার পুলিশ।