টনটন: ক্রিস গেইল ব্যর্থ হলেও বাংলাদেশের সামনে বড় রানের টার্গেট দিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ৷ সোমবার টনটনে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে হোপ, লুইস ও হেটমাইয়ারের ব্যাটে তিনশোর গণ্ডি টপকে যায় ক্যারিবিয়ানরা৷ শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮ উইকেটে ৩২১ রান তোলে ওয়েস্ট ইন্ডিজ৷

লিগ তালিকায় ছ’নম্বরে থেকে এদিন বাংলাদেশের বিরুদ্ধে খেলতে নামছে জেসন হোল্ডাররা৷ চার ম্যাচের মধ্যে মাত্র একটিতে জয় পেয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ৷ বাংলাদেশও সমসংখ্যক ম্যাচ খেলে একটিতে জিতেছে৷ এই ম্যাচের আগ মাশরাফি মোর্তাজারা রয়েছে ৮ নম্বরে৷ দুই দলের পয়েন্ট একই হলেও রান-রেটে এগিয়ে থাকায় বাংলাদেশের উপের রয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ৷

এদিন টস জিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে প্রথমে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানান বাংলাদেশ অধিনায়ক মোতার্জা৷ স্বপ্নের শুর করে বাংলাদশে৷ ইনিংসের চতুর্থ ওভারেই গেইলকে ড্রেসিংরুমের রাস্তা দেখান সইফুদ্দিন৷ ১৩ বল খেললেও কোনও রান না-করে ড্রেসিংরুমে ফেরেন ক্যারিবিয়ান দৈত্য৷

গেইল দ্রুত ড্রেসিংরুমে ফিরলেও সাই হোফ ও এভিন লুইস দ্বিতীয় উইকেটে ১১৬ রানের পার্টানারশিপ গড়ে ক্যারিবিয়ান ইনিংসের ভিত মজবুত করেন৷ দু’জনেই হাফ-সেঞ্চুরি করেন৷ তবে মাত্র ৪ রানের জন্য সেঞ্চুরি হাতছাড়া হয় হোপের৷ ২১২ বলে ৯৬ রানে আউট হন হোপ৷ ইনিংসে চারটি বাউন্ডারি ও একটি ওভার বাউন্ডারি মারেন তিনি৷ আর লুইস অবশ্য আক্রমণাত্মক ইনিংস খেলেন৷ ৬৭ বলে দু’টি ছক্কা ও ৬টি বাউন্ডারির সাহায্যে ৭০ রান করেন ক্যারিবিয়ান ওপেনার৷

তবে ক্যারিবিয়ান ইনিংসে রানের গতি বাড়ান শিমরণ হেটমাইয়ার৷ ২৫ বলে হাফ-সেঞ্চুরি করে বিশ্বকাপে ক্যারিবিয়ান ব্যাটসম্যানদের মধ্যে দ্বিতীয় দ্রুততম ৫০ রান করেন তিনি৷ এর আগে বিশ্বকাপে ২৩ বলে হাফ-সেঞ্চুরি রয়েছে ব্রায়ান লারা৷ এদিন হেটমাইয়ার ২৬ বলে চারটি চার ও তিনটি ছয় মেরে ৫০ রান করে আউট হন৷ এদিন অবশ্য চূড়ান্ত ব্যর্থ আন্দ্রে রাসেল৷ মাত্র ২ বলে থেলে ০ রানে ড্রেসিংরুমে ফেরেন তিনি৷

তবে ক্যাপ্টেন হোল্ডার ১৫ বলে ৩৩ রানের ঝোড়ো ইনিংস খেলেন৷ তার পর ডারেন ব্র্যাভোও ১৫ বলে ১৯ রান করেন৷ বাংলাদেশের মধ্যে সফল বোলার মুস্তাফিজুর রহমান ও মহম্মদ সইফুদ্দিন৷ দু’জনেই তিনটি করে উইকেট নেন৷ দু’টি উইকেট পান শাকিব-আল হাসান৷ টনটনের মাঠ ছোট হলেও ক্যারিবিয়ান পেস ব্যাটারির বিরুদ্ধে ৩২২ রান তাড়া করা সহজ হবে না ওয়েস্ট ইন্ডিজের৷