স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: পঞ্চায়েত ভোটের জন্য অতিরিক্ত বাহিনী চেয়ে পাঁচটি রাজ্যকে চিঠি পাঠাল পশ্চিমবঙ্গ সরকার৷ শনিবার এমনটাই জানা গিয়েছে নবান্ন সূত্রে৷ প্রসঙ্গত, একদিনে ভোট হলে নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করে৷ কিন্তু রাজ্য তখনই জানিয়েছিল, নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে অন্য রাজ্য থেকে বাহিনী চাওয়া হবে৷ এবার সেটাই হল৷

শনিবার নবান্ন সূত্রে জানা গিয়েছে, এদিন পাঁচটি রাজ্যকে চিঠি দেওয়া হয়েছে৷ তাদের কাছ থেকে বাহিনী চাওয়া হয়েছে৷ ওই পাঁচ রাজ্য হল ওডিশা, অন্ধ্রপ্রদেশ, তেলেঙ্গানা, পঞ্জাব ও অসম৷

আরও পড়ুন: মিড ডে মিল বিলিতে গাফিলতি, অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক

প্রসঙ্গত, এই চার রাজ্যের মধ্যে একমাত্র অসমই বিজেপি শাসিত৷ বাকি চারটি রাজ্যেই অ-বিজেপি সরকার রয়েছে৷ ওডিশায় ক্ষমতায় রয়েছে বিজু জনতা দলের নবীন পট্টনায়ক, অন্ধ্রপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী তেলেগু দেশম পার্টির চন্দ্রবাবু নায়ডু, তেলেঙ্গানায় রয়েছে তেলেঙ্গানা রাষ্ট্রীয় সমিতির চন্দ্রশেখর রাওয়ের সরকার৷ আর কংগ্রেসে ক্ষমতায় রয়েছে পঞ্জাবে৷ শুধু অসমেই এখন বিজেপির সরকার৷

আর অসম ছাড়া বাকি রাজ্যগুলির সঙ্গে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সম্পর্ক ভালো৷ গোটা দেশে মোদী বিরোধী জোট গড়তে তৃণমূল নেত্রী হিসেবে যে প্রয়াস তিনি নিচ্ছেন, তার অংশীদার অন্ধ্রপ্রদেশ, তেলেঙ্গানা৷ সম্প্রতি তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রশেখর রাও কথা বলে গিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে৷ অন্ধ্রপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রবাবু নায়ডু ও ওডিশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়কের সঙ্গেও যোগাযোগ রয়েছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের৷ প্রশ্ন উঠছে, সেই সুসম্পর্কের জন্যই কি এই রাজ্যগুলির কাছে বাড়তি বাহিনী চেয়ে চিঠি পাঠাল রাজ্য৷

আরও পড়ুন: জেল থেকে LIVE অডিও বার্তা দিচ্ছে আসারাম

আরও পড়ুন: সম্পূর্ণ নগ্ন হয়ে নতুন করে পারদ চড়ালেন কিম

ফলে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারের এই চিঠি ঘিরে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে রাজনৈতিক মহলে৷ তাহলে কি পঞ্চায়েত ভোটে শাসক দলকে অ্যাডভান্টেজ দিতেই বন্ধু রাজ্যের পুলিশ ডাকা হচ্ছে৷