স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: এবার ধীরে ধীরে গরম বাড়বে। এমনটাই জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর। মার্চ মাসের অর্ধেক কেটে গেলেও আবহাওয়ার অদ্ভুত চরিত্রে এখনও রাতে পাখা না চালালেও চলে যাচ্ছে। সেই অবস্থার অবশেষে পরিবর্তন হতে চলেছে শহরে। গরমের আভাস এবার কিছুটা হলেও মালুম হবে বলে জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর।

আজ সোমবার শহরের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২২.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা এখনও স্বাভাবিক। অপরদিকে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা এখনও স্বাভাবিকের নীচে রয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় তা ছিল ৩১.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে দুই ডিগ্রি কম। এবার এই অবস্থার পরিবর্তন হবে। আর্দ্রতার পরিবর্তন হবে।

অর্থাৎ ঘাম দিয়ে গরম বৃদ্ধির ইঙ্গিত দিচ্ছে। এখন যেমন তাপমাত্রা ২২ থেকে ৩২ এর মধ্যে ঘোরাফেরা করছে আগামী কয়েকদিনের মধ্যেই তা দুই থেকে তিন ডিগ্রি বাড়তে পারে বলে জানাচ্ছেন আবহাওয়াবিদরা। রবিবার কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা একলাফে ২৩ থেকে কমে ১৯-এ চলে এসেছিল। কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৯.২ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে তিন ডিগ্রি কম ছিল। সোমবার তা লাফ দিয়ে তিন ডিগ্রি বেড়েছে। যা পরে আরও বাড়বে।

গত বৃহস্পতিবার থেকে শুরু করে আজ সোমবার সকাল পর্যন্ত বাতাসে ঠাণ্ডা ভাব ছিল। রবিবার দুপুরের দিকে রীতিমত শীতের শুরুর মতো শুকনো হাওয়া দিচ্ছিল। আবহাওয়াবিদরা জানিয়েছিলেন , বঙ্গোপসাগরে একটি বিপরীত ঘূর্ণাবর্ত তো রয়েইছে। তার ফলে বাতাসের উপরিভাগে একটি শুষ্ক ভাব তৈরি হয়েছে।

পাশাপাশি বিহার ও ঝাড়খণ্ড অঞ্চলে নাগাড়ে ঝড়ের সম্ভাবনা তৈরি হচ্ছে। উত্তরবঙ্গের দিকেও ভালো পরিমাণ ঝড় বৃষ্টি হচ্ছে। এই চতুর্মুখী প্রভাবেই আজ সকাল পর্যন্ত শুকনো ঠাণ্ডা হাওয়ার প্রভাব ছিল। বেলা গড়াতে ঠাণ্ডা হাওয়া আর দেয়নি। তুলনায় বাতাসে আর্দ্রতার বেশি হওয়ার ইঙ্গিত মিলেছে। আগামী কয়েকদিনে তা আরও স্পষ্ট হবে।

দেশে এবং বিদেশের একাধিক সংবাদমাধ্যমে টানা দু'দশক ধরে কাজ করেছেন । বাংলাদেশ থেকে মুখোমুখি নবনীতা চৌধুরী I