সিডনি: শুক্রবার থেকে অস্ট্রেলিয়া সফর শুরু হচ্ছে বিরাট-রাহুলদের৷ তার আগে নিজেদের মধ্যে প্র্যাকটিস ম্যাচ খেলল ভারতীয় দল৷ ৪০ ওভারের প্রস্তুতি ম্যাচে লোকেশ রাহুলের রনজিৎ সিংজি একাদশকে হেলাল হারায় বিরাট কোহলির সিকে নাইডু একাদশ৷

ওয়ান ডে সিরিজ দিয়ে অস্ট্রেলিয়া সফর শুরু করছে কোহলি অ্যান্ড কোং৷ কিন্তু তার আগে করোনা আবহে নিজেদের মধ্যেই প্র্যাকটিস ম্যাচ খেলতে হল কোহলিদের৷ মরু শহরে আইপিএল শেষ হওয়ার পরই দুবাই থেকে সরাসরি সিডনির বিমান ধরেন ভারতীয় দলের ক্রিকেটাররা৷ তবে সফর শুরুর আগে ১৪ দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হচ্ছে বিরাটদের৷

তবে প্রথম কোভিড টেস্টে প্রত্যেক ভারতীয় ক্রিকেটারের রিপোর্ট নেগেটিভ আসার পর প্র্যাকটিসে নামার ছাড়পত্র মেলে বিরাটদের৷ কয়েকদিনের নেট প্র্যাকটিসের পর নিজেদের মধ্যে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলে বিরাট-রাহুলরা৷ সীমিত ওভারের সিরিজের রোহিত শর্মা না-থাকায় বিরাটের ডেপুটি হলেন রাহুল৷ রবিবার কোহলি ও রাহুলের মধ্যে ৪০ ওভারের একটি প্র্যাকটিস ম্যাচ হয়৷

প্রথম ব্যাটিং করে ২৫ রান তুলেছিল রাহুলের রনজিৎ সিংজি একাদশ৷ ব্যাট হাতে দলকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেন রাহুল৷ ময়াঙ্ক আগরওয়াল ও শিখর ধাওয়ানের ইনিংস শুরু করলেও ৬৬ বলে ৮৩ রানের ইনিংস খেলে দলকে বড় রানে পৌঁছে দেন৷ তবে কোহলির ব্যাটে সহজেই সেই টার্গেটে পৌঁছে যায় সিকে নাইডু একাদশ৷

কোহলির ৫৮ বলে ৯১ রানের ইনিংসে ৪.২ ওভার বাকি থাকতেই ম্যাচ জিতে নেয় কোহিলর দল৷ বিরাটের ইনিংস শুরু করেছিলেন দুই ওপেনার পৃথ্বী শ ও শুভমন গিল৷ তবে কোহলির বড় রানে ২৬ বল বাকি থাকতেই ম্যাচ জিতে নেয় সিকে নাইডু একাদশ৷

২৭ নভেম্বর ওয়ান ডে সিরিজ দিয়ে অস্ট্রেলিয়া সফরে অভিযান শুরু করছে কোহলি অ্যান্ড কোং। তার পর রয়েছে তিন ম্যাচের টি-২০ সিরিজ। সব শেষে ৪ ম্যাচের টেস্ট সিরিজ৷ প্রথম টেস্ট শুরু ১৭ ডিসেম্বর থেকে অ্যাডিলেড ওভালে। যেটি আবার ডে-নাইট টেস্ট৷ বিদেশে প্রথম দিন-রাতের টেস্ট ম্যাচ খেলবে ভারতীয় দল৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনাকালে বিনোদন দুনিয়ায় কী পরিবর্তন? জানাচ্ছেন, চলচ্চিত্র সমালোচক রত্নোত্তমা সেনগুপ্ত I