মুম্বই: বিশ্ব নারী দিবসে স্ত্রী ও মেয়েকে সম্মান জানালেন ভারতীয় ক্রিকেটের ফার্স্ট ম্যান৷ সোমবার International Women’s Day-তে নিজের অফিসিয়াল ইনস্টাগ্রামে স্ত্রী অনুষ্কা শর্মা ও মেয়ে ভামিকার ছবি পোস্ট করলেন বিরাট কোহলি৷

বাবা হওয়ার পর প্রথম International Women’s Day সেলিব্রেট করলেন ক্যাপ্টেন কোহলি৷ ইনস্টাগ্রামে স্ত্রী ও মেয়ের ছবি পোস্ট করে বিরাট লেখেন, “Seeing the birth of a child is the most spine chilling, unbelievable and amazing experience a human being can have. After witnessing that, you understand the true strength and divinity of women and why God created life inside them. It’s because they are way stronger than us men. Happy Women’s Day to the most fiercely, compassionate and strong woman of my life and to the one who’s going to grow up to be like her mother. And also a Happy Women’s Day to all the amazing women of the world.”

মহিলাদের সম্মান জানিয়ে মেয়েকে তাঁর মায়ের মতোই দেখতে চান বিরাট৷ পুরষদের থেকেও মহিলারা যে অনেক বেশি শক্তিশালী তা ব্যক্ত করেন ভারত অধিনায়ক৷ ১১ জানুয়ারি বাবা হয়েছেন কোহলি৷ মুম্বইয়ের এক হাসপাতালে এক কন্য সন্তানের জন্ম দেন বিরাটপত্নী অনুষ্কা৷ তবে ২০ দিন পর অর্থাৎ ১ ফেব্রুয়ারি মেয়ের ছবি প্রকাশ্যে আনে বিরুষ্কা৷ বিরাট-অনুষ্কা কন্যাকে দেখার জন্য উদগ্রীব ছিলেন নেটাগরিকরা৷ কিন্তু করোনার কারণে সর্তকতা হিসেবে নিকটাত্মীয়দেরও হাসপাতালে দেখা করার অনুমতি দেননি ভারতীয় ক্রিকেটের ফার্স্ট ম্যান ও ফার্স্ট লেডি৷

গত মাসের প্রথম দিনেই মেয়ের ছবি প্রকাশ্যে আনার পাশাপাশি মেয়ের নাম জানিয়েছিলেন বিরাটপত্নী৷ মেয়ের সঙ্গে তাঁদের দু’জনের ছবি পোস্ট করে অনুষ্কা তাঁর ইনস্টাগ্রামে লিখেছিলেন, ‘‘We have lived together with love, presence and gratitude as a way of life but this little one Vamika ❤️ has taken it to a whole new level! Tears, laughter, worry, bliss – emotions that have been experienced in a span of minutes sometimes! Sleep is elusive 😛 but our hearts are SO full ❤️ Thanking you all for your wishes, prayers and good energy 🤗”

চলতি মাসের ৪ তারিখ আমদাবাদে বিরাটের সঙ্গে টিম হোটেলে যোগ দিয়েছিলেন অনুষ্কা ও মেয়ে ভামিকা৷ মেয়ের সামনে প্রথমবার বাইশ গজে নেমে দারুণ সফল হন কোহলি৷ চতুর্থ টেস্টে ইংল্যান্ডকে দুরমুশ করে ভারতকে আইসিসি ওয়ার্ল্ড টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে তোলেন বিরাট৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।