দুবাই: করোনা আবহে আইপিএল শুরু হলেও বন্ধ দরজায় অর্থাৎ দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে হবে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট লিগ৷ রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর অধিনায়ক বিরাট কোহলি বৃহস্পতিবার বলেন, ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগ ২০২০ দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে হলেও তাঁতের মোটিভেশনের কোনও সমস্যা হবে না৷

এবারের আইপিএল শুরু হচ্ছে ১৯ সেপ্টেম্বর৷ ফাইনাল ১০ নভেম্বর৷ সংযুক্ত আরব আমিরশাহীর তিনটি শহর দুবাই, আবুধাবি ও শারজার তিনটি ভেন্যুতে আইপিএল ২০২০ খেলতে হবে। টুর্নামেন্টের প্রথমার্ধটি বন্ধ দরজার পিছনে খেলতে হবে৷ কারণ করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসাবে কোনও ভিড় থাকবে না।

এদিন প্রাক টুর্নামেন্ট ভার্চুয়াল প্রেস কনফারেন্সের সময় কোহলি বলেন, ‘আমরা সকলেই খালি স্টেডিয়ামগুলির সামনে খেলার কথা ভেবেছি। এটি একটি আশ্চর্য অনুভূতি হবে, আমি তা অস্বীকার করতে পারি না৷ দিনের শেষে আপনি বুঝতে পেরেছেন যে, আপনি কেন খেলাটি খেলতে শুরু করেছিলেন৷ আপনার এখন এই খেলাটি ভীষণ পছন্দ হলেও মাঠে বসে তা দেখার সুযোগ পাবেন না৷ কারণ ভিড় যে কোনও খেলাধুলার একটি আশ্চর্যজনক অংশ৷ যা এই মুহূর্তে কাম্য নয়৷’

তিনি আরও যোগ করেন, ‘এবার আমাদের চারপাশে অনেক লোককে আনন্দ দেওয়ার সুযোগ রয়েছে৷ কেবল আমাদের ভিড় না-থাকায় আমাদের তীব্রতা এবং আবেগের মাত্রা হ্রাস পাবে, এমনটা নয়৷’

কীভাবে বায়ো-সুরক্ষিত বুদ্বুদে জীবনযাপনের মানিয়ে নিয়েছে? এই প্রশ্নের উত্তরে কোহলি বলেন, ‘আমরা আপনার চারপাশের বিষয়গুলির প্রশংসা করার জন্য আলোচনা করেছি, আমাদের কী করা উচিত তা আমরা সবাই জানি। আমরা জানি, এই জৈব-সুরক্ষিত বুদ্বুদে আমরা কী সামর্থ্য রাখতে পারি৷ আমরা যে পরিস্থিতিতে আমাদের জীবনযাপন করছি, তার সঙ্গে মানিয়ে নিয়ে আমরা এখন স্বচ্ছন্দ হয়ে পড়েছি। কোন প্রকারের হতাশা নেই৷ আমার পক্ষে এটাই সবচেয়ে বড় শিক্ষা, এখন আমরা মহামারীর বিরুদ্ধে লড়াই করছি৷’

১৯ সেপ্টেম্বর আবুধাবিতে টুর্নামেন্টের ওপেনার মুখোমুখি হবে গতবারের চ্যাম্পিয়ন মুম্বই ইন্ডিয়ান্স এবং গতবারের রানার্স চেন্নাই সুপার কিংস। তবে আরসিবি-র প্রথম ম্যাচ ২১ সেপ্টেম্বর সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে৷

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।