ধরমশালা: দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে সিরিজ শুরুর আগে বিতর্কিত টুইটের জবাব দিলেন বিরাট কোহলি৷ রবিবার ধরমশালায় প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে টি-২০ সিরিজ খেলতে নামছে ভারত৷ শনিবার প্রাক ম্যাচ সাংবাদিক বৈঠকে ধোনিকে তাঁর টুইটের ব্যাখ্যা দিলেন ভারত অধিনায়ক৷

বৃহস্পতিবার থেকে হঠাৎই ধোনিকে নিয়ে বিরাটের টুইটে তোলপাড় হয়ে পড়েছিল নেট দুনিয়া। টুইটারে মহেন্দ্র সিংহ ধোনির সঙ্গে তাঁর ‘রানিং বিটউন দ্য উইকেট’-এর একটি ছবি পোস্ট করে কোহালি লেখেন, ‘এই ম্যাচটার কথা কখনও ভুলতে পারব না৷ ওটা ছিল স্পেশাল নাইট৷ এই লোকটার সঙ্গে রান নেওয়া মানেই ফিটনেস টেস্ট দেওয়া৷’

কোহলির এই টুইটের পরই দেশ জুড়ে প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক ধোনির অবসর ঘোষণা নিয়ে শুরু হয়ে যায় জল্পনা। ধোনি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নিয়েছে কিনা, তা জানতে চেয়ে ভক্তরা সোশাল মিডিয়া পোস্ট করেন৷ অনেকে আবার দাবি করেন, ধোনি কবে অবসর নেবেন, তা ভালো করেই জানেন কোহালি। তাই পুরনো স্মৃতি তুলে ধরে পূর্বসূরিকে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন বিরাট।

ধোনির অবসর নিয়ে মুখ খুলতে বাধ্য হয়েছে জাতীয় নির্বাচক কমিটির চেয়ারম্যান এমএসকে প্রসাদকেও৷ ধোনির অবসরের খবর গুজব বলে টুইটারে প্রসাদ লেখেন, ‘কোথা থেকে এই খবর রটেছে জানি না। তবে এটি গুজব৷ আমার কাছে এই ধোনির অবসর নিয়ে কোনও খবর নেই।’ পরে টুইট করে একই কথা বলেন ধোনি পত্নী সাক্ষী৷

আগে মুখ না-খুললেও এদিন সংবাদিক বৈঠকে ধোনিকে নিয়ে তাঁর টুইট প্রসঙ্গে বিরাট বলেন, ‘কোনও কিছু ভেবে আমি ওই টুইট করিনি। বাড়িতে বসে পুরনো ছবি ঘাঁটতে ঘাঁটতে ওই ছবিটা খুঁজে পাই। কিন্ত তা পোস্ট করতেই যে খবর হয়ে যাবে ভাবিনি।’ তবে এই ঘটনা থেকে তিনি যে শিক্ষা নিয়েছেন, তা জানাতে ভোলেননি ভারত অধিনায়ক৷ কোহালির উপলব্ধি, তিনি যেভাবে ভাবছেন, বাকিরা যে একইভাবে ভাববেন, এমন কোনও কারণ নেই।

২০১৬ টি-২০ বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ম্যাচের কথা উল্লেখ করেছিলেন বিরাট৷ বিশ্বকাপের গ্রুপের শেষ ম্যাচে (কার্যত যা ছিল কোয়ার্টার ফাইনাল) অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ধোনির সঙ্গে তাঁর ‘রানিং বিটউন দ্য উইকেট’ এদিন ফেসবুক ও টুইটারে আপলোড করেছিলেন কোহলি৷ এই ম্যাচে ১৬১ রান তাড়া করতে নেমে ভারত প্রথম দিকে সমস্যায় পড়েছিল ভারত৷ কিন্তু ধোনি ও বিরাটের ব্যাটে পাঁচ বল বাকি থাকতেই ম্যাত জিতেছিল ভারত৷

ইনিংসের শেষ দিকে এক ওভারে ধোনির সঙ্গে চারবার দু’রান করে নেওয়ার জন্য প্রাক্তন ভারত অধিনায়কের প্রশংসা করেন বিরাট৷ ধোনি ও কোহলির ‘রানিং বিটউন দ্য উইকেট’-এর কাছে হেরে যায় অস্ট্রেলিয়া৷

ধোনিকে নিয়ে তাঁর মতামত সম্পর্কে বিরাট এদিন বলেন, ‘ধোনির সবচেয়ে বড় গুণ হল ও ভারতীয় ক্রিকেট নিয়ে ভাবে৷ টিম ম্যানেজমেন্টে ধোনিকে নিয়ে যা ভাবে, ও তাই ভাবে৷ তরুণদের ও যেভাবে গ্রুমিং করে তা ভারতীয় ক্রিকেটেই উপকৃত হচ্ছে৷’ ধোনিকে ছাড়াই অবশ্য প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে টি-২০ সিরিজ খেলতে নামছে টিম কোহলি৷