লন্ডন: রানির দেশ ইংল্যান্ডে ৫ জুন বিশ্বকাপ অভিযান শুরু করছে ভারত৷ সাউদাম্পটনের রোসবোলে বিরাটদের প্রথম প্রতিপক্ষ দক্ষিণ আফ্রিকা৷ টুর্নামেন্টের পর্দা ওঠার আগে বুধবার বাকিংহাম প্যালেসে রানির সঙ্গে দেখা করলেন কোহলিরা৷ রানির সঙ্গে দশ দলের অধিনায়ক গ্রুপ ছবিও তোলেন৷ প্রিন্স হ্যারিও দেখা করেন বিশ্বকাপে অংশগ্রহণকারী দলগুলির ক্যাপ্টেনদের সঙ্গে৷

রানির সঙ্গে কোহলির সেই ছবি পোস্ট করে বোর্ডের ওয়েবসাইটে লেখা হয়েছে, ‘Skipper meets the Queen’ রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সঙ্গে কোহলির ফ্রেম ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড় তুলেছে৷ মজা করে নেটিজেনের অনেকেই লিখেছেন, ‘রানির থেকে, ভারতের সম্পদ কোহিনূরটা চেয়ে নিক কোহলি৷’

প্রসঙ্গত প্রায় দুশো বছর ভারত উপমহাদেশ শাসন করেছে ব্রিটিশরা। এই শাসনকালে হাজার হাজার কোটি টাকার সম্পদও নিজেদের দেশে নিয়ে গিয়েছিল ইংরেজরা৷ যে সম্পদের মাঝে আছে ইতিহাস প্রসিদ্ধ হিরা ‘কোহিনূর’ মুঘল সাম্রাজ্যের গৌরব ও সম্রাট শাজাহানের ময়ূর সিংহাসনের শোভা বর্ধনকারী কোহিনূর হিরা ভার‍ত থেকে লুট করে নিয়ে যান পারস্য সম্রাট নাদির শাহ। পরে তা ভারতে ফেরত এলেও ভাইসরয় লর্ড ডালহৌসি সেটি অধিগ্রহণ করে উপহার দেন ব্রিটিশ রানি ভিক্টোরিয়াকে। তখন থেকেই ব্রিটিশ সাম্রাজ্যের মুকুটে শোভা পাচ্ছে কোহিনুর।

রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সঙ্গে কোহলির কুশল বিনিময়ের ছবি ভাইরাল হতেই সেই কোহিনূর প্রসঙ্গ টেনে মজার টিপ্পনি কাটতে শুরু করেছে নেটিজেন৷ সেই টিপ্পনিতেই মজা করে সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যবহার কারীরা লিখেছেন, ‘বিশ্বকাপের পাশাপাশি এবার কোহিনূরটাও রানির দেশ থেকে ফিরিয়ে নিয়ে আসুক বিরাট৷’

প্রসঙ্গত কোহলির দলকে দ্বাদশ বিশ্বকাপের অন্যতম ফেভারিট দল ধরা হচ্ছে, ব্যাটিং-থেকে বোলিং সব বিভাগেই কোহলির দলের গভীরতার জন্য তাঁদের এবার ফেভারিট তকমা দিচ্ছেন প্রাক্তনরা৷ মনে করা হচ্ছে, কোহলির বিশ্বকাপ জয়ের স্বপ্ন হতে পারে তাঁর স্বাদের বোলিং উইনিট৷ বুমরাহ-শামি-ভুবনেশ্বর ত্রয়ীর গতি-সুইং আর দুই লেগ স্পিনার কুলদীপ-চাহালের উপরই ভারতের বিশ্বকাপ জয় নির্ভর করছে৷