মু্ম্বই: সোশাল মিডিয়ায় এই ক্রিক-বলি দম্পতি অ্যাকটিভ হওয়া নতুন কিছু নয়৷ দিনেরে বেশিরভাগ সময়ই সোশাল মিডিয়ায় কাটান ভারতীয় ক্রিকেটের ফার্স্ট ম্যান ও ফার্স্ট লেডি৷

করোনাভাইরাসের কারণে লকডাউনের জন্য বিয়ের পর সবচেয়ে বেশি সময় এক সঙ্গে কাটানোর সুযোগ পান বিরাট কোহলি ও অনুষ্কা শর্মা৷ এর আগেই নিজেদের খুনসুটি ভিডিও এবং ছবি সোশাল মিডিয়া পোস্ট করেছেন বিরুষ্কা৷ আইপিএল শুরুর আগে স্ত্রী অনুষ্কার সঙ্গে ইন্টারেক্টিভ গেম রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স অধিনায়ক৷ বুধবার ইনস্টাগ্রামে এই গেমের একটি ভিডিও পোস্ট করেন বিরাট কোহলি৷ যার ক্যাপশনে ভারত অধিনায়ক লেখেন,”Find out who knows who better, in this fun and interactive #TakeABreak session with us. Hope you guys enjoy it and figure out who the winner is because I couldn’t.” অর্থাৎ আমাদের সঙ্গে এই মজা এবং ইন্টারেক্টিভ # টেকএব্রেক সেশনে কে আরও ভালো জেনে নিন৷ আশাকরি আপনারা উপভোগ করবেন এবং কে বিজয়ী তা খুঁজে বের করবেন৷ কারণ আমি পারিনি!

ভিডিওটিতে দেখা গিয়েছে, তিনি অনুষ্কার সঙ্গে একটি মজাদার এবং ইন্টারেক্টিভ খেলায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন৷ যেখানে এই দম্পতি পরীক্ষা করে দেখেন কে আরও ভালো। ভিডিও-তে ভারত অধিনায়ক এবং বলি অভিনেত্রী একে অপরকে তাঁদের পেশা এবং তাঁদের ব্যক্তিগত পছন্দ নিয়ে ও কিছু সাধারণ প্রশ্ন জিজ্ঞেস করেন৷ তাঁদের হাস্যকর উত্তর ফ্যানের মনে বেশ কিছু প্রশ্নের জন্ম দেয়৷ যেখানে অনুষ্কা প্রমাণ করেন যে, তাঁর ক্রিকেট সম্পর্কে খুব ভালো জ্ঞান রয়েছে৷ আর বিরাট বলিউড সম্পর্কে একটি প্রশ্নের জবাব দিতে ব্যর্থ হন৷ ফলে প্রথম রাউন্ডে হেরে যান কোহলি৷

ইনস্টগ্রামে ছবি ও মজাদার ভিডিও পোস্ট করে কোটি কোটি টাকা আয় করছেন এই সেলেব্রিটি দম্পতি৷ বিরাটের বাইশ গজের লড়াই এবং অনুষ্কার শুটিং বন্ধ থাকলেও ভক্তদের লাইক-শেয়ারে কোটি কোটি টাকা ঢুকেছে ক্রিক-বলি দম্পতির ব্যাংক অ্যাকাউন্টে৷ বিশেষ করে ইনস্টাগ্রামের মাধ্যমে৷ এর আগে লকডাউনে নিজের ওয়ার্ক-আউটের বেশ কিছু ভিডিও পোস্ট করেছিলেন বিরাট৷

দেশে করোনা সংক্রমণ বাড়লেও ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগের হাত ধরে মাঠে ফিরতে চলেছেন বিরাটরা৷ রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের নেতা বিরাট আর কিছুদিনের মধ্যেই সংযুক্ত আরব আমিরশাহী উড়ে যাবেন৷ কারণ আইপিএলের ত্রয়োদশ সংস্করণ হতে চলেছে মরু শহরে৷ ৫৩ দিনের এই টুর্নামেন্ট শুরু হবে ১৯ সেপ্টেম্বর৷ আর ফাইনাল ১০ নভেম্বর৷

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও