স্টাফ রিপোর্টার, মেদিনীপুর: ওরাও প্রাণী৷ ওদেরও প্রাণের দাম রয়েছে৷ ওদেরও আছে পরিবার৷ ওদের মৃত্যুতে মর্মাহত মানবকুল৷ ওরা হাতি৷ বহু গরীব মানুষের খেতের ফসল নষ্ট করে দেয় এই হাতি৷ কিন্তু তাতে কি? হাতিদের মৃত্যুর পর তাদের আত্মার শান্তি কামনায় নেপুরা গ্রামের মানুষ একত্রিত হয়ে আয়োজন করে পুজোর৷

হাতি ফসলের ক্ষতি করেছে৷ এর থেকেও দুটি হাতির মৃত্যু এলাকার মানুষের মনকে নাড়া দিয়েছে বেশি৷ তাই তাদের আত্মার শান্তি কামনায় গ্রামের মানুষ একত্রিত হয়ে আয়োজন করে পুজোর। মেদিনীপুরের নেপুরা গ্রামের ঠিক যে জায়গায় গত ১২ জানুয়ারি বিদুৎপৃষ্ট হয়ে দুটি হাতির মৃত্যু হয়েছিল আজ ২১ জানুয়ারি সোমবার তাদের আত্মার শান্তি কামনায় পূজার্চনা করল এলাকাবাসী।

পুজোর পাশাপাশি গ্রামের মানুষকে খিচুড়ি প্রসাদ বিতরণের আয়োজন করা হয়। একদিকে যেমন পুজোর আয়োজন করা হয়, ঠিক অন্যদিকে আয়োজন করা হয় নরনারায়ণ সেবার।

পূজারী চন্দন মিশ্র বলেন, মানুষ মারা গেলে যেমন তার আত্মার শান্তি করতে শ্রাদ্ধ করা হয়৷ তেমনই এই স্থানে দুটি হাতির মৃত্যু হয়েছে৷ আর সেই কারণে অন্য হাতির দল প্রতি রাতে এখানে আসছে। তবে হাতির দলটা আসে মৃত হাতিদের খোঁজে৷ তাই মাঠে ফসল থাকলেও সেদিকে যায় না।

এলাকার এক উদ্যোক্তা যুবক সুব্রত ঘোষ বলেন, এলাকার মানুষ মৃত হাতিদের শ্রাদ্ধ ও পুজোর জন্য স্বেচ্ছাতে অনুদান দিয়েছে৷ তাতেই আমাদের পুজো ও প্রায় হাজার দুয়েক মানুষের খাওয়া হল।