মুম্বই: মাস খানেক আগে করণ জোহরের বাড়ির পার্টির একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়। সেই পার্টিতে দীপিকা পাডুকোন, রণবীর কাপুর, ভিকি কৌশল-সহ বলিউডের অনেক তারকাই উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু ভিডিও ভাইরাল হতেই অনেকে দাবি করেন, তারকারা মাদকাসক্ত। বিশেষ করে ভিকি কৌশল ড্রাগ নিয়ে রয়েছেন। সেই প্রসঙ্গেই ফের মুখ খুললেন ভিকি।

ভিকি বলেন, “কোনও কিছু না জেনে কারও ব্যাপারে শুধু ধারণার বশবর্তী হয়ে কোনও মন্তব্য করে দেওয়া ঠিক নয়।” ভিকি জানান, তিনি সেই সময়ে ডেঙ্গি থেকে সেরে উঠছিলেন। তাই জন্যই ক্লান্ত লাগছিল।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনের কাছে ভিকি বলেছেন, “করণ সেদিন আমাদের সবাইকে আড্ডা মারতে ডেকেছিল। ওই রাতের তিন দিন আগেই আমি ডেঙ্গি থেকে সেরে উঠেছিলাম। আমি সেই সময়ে টানা ১০ দিন বাড়িতে ছিলাম। খুব একঘেঁয়ে লাগতো। চার বার চেষ্টার পরে ভালো ভাবে ওই ভিডিওটা শ্যুট করেছিল করণ। তাই আমরাও খুব হাঁপিয়ে গিয়েছিলাম। আমরা জানতামও না যে ভিডিওটা তখন করা হচ্ছে।”

ওই ভিডিওয় ভিকিকে নাক চুলকোতে দেখা গিয়েছিল। তাই জন্যই নেটিজেনরা দাবি করেন ড্রাগ নিয়েছিলেন ভিকি। এই প্রসঙ্গে বলিউডের হার্টথ্রব বলেন, “নাক চুলকনো একটা স্বাভাবিক জিনিস। নাক চুলকনো মানেই কেউ মাদকাসক্ত নয়। আমি মনে করি ওই সময়টা একদম ঠিকঠাক ছিল। ডেঙ্গুর পরে আমার লুকটাও ঠিক ছিল।”

ভিডিওটি যখন পোস্ট করেছিলেন করণ, তখন ভিকি অরুণাচল প্রদেশে শ্যুটিং করছিলেন। বন্ধ ছিল তাঁর সোশ্যাল মিডিয়াও। ভিকি বলেন, “আমি ফিরে টুইটার খুলে এসব দেখে চমতে যাই। আমি বাবা-মাকে জিজ্ঞাসা করি তাঁরা বিষয়টা জানে কি না জানতে। ওরা বলেন, নেটওয়র্ক ছিল না বলে আমায় ফোনে জানাতে পারেনি।”

প্রসঙ্গত, ভিকি এই সময়ে ‘ভূত’ ও ‘সর্দার উধাম সিং’ ছবির কাজ নিয়ে ব্যস্ত।