কলকাতা : মহরমের শোভাযাত্রা ও বিজয়া দশমীর দিন দুর্গাপুজোর শোভাযাত্রা নিয়ে বিতর্ক উসকে দিলেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ৷ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে উদ্দ্যেশ্য করে যোগী বলেন মহরমের শোভাযাত্রা সময় বদলান মুখ্যমন্ত্রী৷ কিন্তু দুর্গাপুজোর শোভাযাত্রার সময় বদলাবেন না৷ এর আগে দুর্গাপুজো ও মহরম একই দিনে পড়ায়, দুর্গাপুজোর শোভাযাত্রা একদিন পিছিয়ে দেওয়া হয়৷ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়৷

সেই সিদ্ধান্তকেই কটাক্ষ করেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী৷ তিনি বলেন মুসলিম তোষণকে এরাজ্যে নয়া মাত্রা দিয়েছেন মমতা৷ রাজনীতির স্বার্থে ও মুসলিম ভোটব্যাঙ্ক পাওয়ার জন্য মমতা এই খেলা খেলছেন৷ তবে মানুষ সব বুঝতে পারছেন৷ বারাসতে এক জনসভায় দাঁড়িয়ে মমতাকে উদ্দ্যেশ্য করে যোগী বলেন গোটা দেশে দুর্গা পুজো ও মহরম একই দিনে পড়ে৷ উত্তরপ্রদেশে কখনই দুর্গাপুজোর সময় পরিবর্তন করা হয় না৷

আরও পড়ুন : বিদ্যাসাগর কলেজে গন্ডগোল: মিছিলে লাঁঠি নিয়ে আসতে বলে বিতর্কে বিজেপি নেতা

এদিন আইএস নেতা আবু বকর আল বাগদাদির সাথে মমতার তুলনা করেন যোগী৷ তিনি বলেন মমতা বাগদাদির মত আচরণ করছেন৷ স্বৈরতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছেন রাজ্যে৷ বিজেপিকে মমতা ভয় পাচ্ছেন, তাই তাঁর একের পর এক জনসভা বাতিল করা হচ্ছে বলে কটাক্ষ করেন উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী৷ তাঁর এটা মনে রাখা উচিত বাংলা ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ৷ ভোটাররা সব লক্ষ্য রাখেন৷ তাঁরাই মমতাকে শিক্ষা দেবেন৷

এর আগে, নির্বাচন কমিশনের কাছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে প্রচার থেকে বিরত রাখার আর্জি জানায় বিজেপি৷ তিনি সংসদীয় ব্যবস্থাকে নষ্ট করে দিচ্ছেন, এই অভিযোগ তুলে বিজেপি নির্বাচন কমিশনের দ্বারস্থ হয়৷

উল্লেখ্য, লোকসভা নির্বাচন উপলক্ষে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তেই জনসভা করে বেরিয়েছেন যোগী৷ তবে সম্প্রতি তাঁর তিনটি জনসভার অনুমতি দেয়নি প্রশাসন৷ বিজেপির বক্তব্য, দক্ষিণ ২৪ পরগণার জেলাশাসক এবং রাজ্যে মুখ্য নির্বাচন আধিকারিক তৃণমূল কংগ্রেসের হয়ে কাজ করছেন৷

আরও পড়ুন : বুদ্ধ পূর্ণিমায় আইএস হামলার বিষয়ে ভারত-বাংলাদেশ তথ্য বিনিময়

লোকসভা নির্বাচনের অনেক আগে থেকেই বাংলায় সভা করছেন যোদী আদিত্যনাথ৷ বিজেপির রথযাত্রা – গণতন্ত্র বাঁচাও যাত্রা রাজ্যে হতে পারেনি৷ তার বদলে বিজেপি রাজ্যের দিকে দিকে গণতন্ত্র বাঁচাও সভার আয়োজন করে৷ বেশ কয়েকটি জনসভায় ভাষণ দিয়ে গিয়েছেন যোগী৷ বাংলায় লোকসভা ভোটের পরিপ্রেক্ষিতে যোগী আদিত্যনাথ এরপরেও বেশ কয়েকটি সভা করেছেন৷

উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী সারা ভারতেই বিজেপির ‘হট প্রপার্টি৷’হিন্দুত্ব থেকে রামমন্দির বা গো-রক্ষক থেকে কুম্ভমেলা – যোগী এখন সর্বভারতীয় মিডিয়ার স্পটলাইটে রয়েছেন৷ বাংলায় যোগী ২০১৯ সালের আগে কখনও রাজনৈতিক ভাষণ দিয়েছেন বলে জানা যায় না৷ রাজ্য বিজেপির দাবি অনুযায়ী – বাংলায় এই প্রথম এত জনসভা করছেন যোগী৷