লখনউ:‌ অবাক কাণ্ড উত্তরপ্রদেশে! একসঙ্গে ২৫ স্কুলে শিক্ষকতা করেছেন উত্তরপ্রদেশের এক শিক্ষিকা। গত এক বছরে 25 স্কুলে শিক্ষকতা করে প্রায় ১ কোটি টাকা রোজগার করেছেন তিনি। গত এক বছর ধরে রাজ্য সরকারের নজর এড়িয়ে দিনের পর দিন এই বেনিয়ম চালিয়ে গিয়েছেন ওই মহিলা। সম্প্রতি বিষয়টি প্রকাশ্যে আসতেই চোখ কপালে উত্তরপ্রদেশ রাজ্য শিক্ষা সংসদের। তড়িঘড়ি ঘটনার তদন্ত শুরু।

উত্তরপ্রদেশের ওই মহিলার নাম অনামিকা শুক্লা। কস্তুরবা গান্ধী বালিকা বিদ্যালয়ের শিক্ষিকা তিনি। শুধু এই স্কুলই নয়, রাজ্য শিক্ষা দফতরের অধীনে থাকা অন্তত ২৫টি স্কুলে দিনের পর দিন শিক্ষকতা করে গিয়েছেন ওই মহিলা। ওই স্কুলগুলিতে এক বছরেরও বেশি সময় ধরে শিক্ষকতা করেছেন অনামিকা।

একাধিক স্কুলে শিক্ষকতা করে প্রায় ১ কোটি টাকা আয় করেছেন তিনি। কোনওভাবে বিষয়টি প্রকাশ্যে আসতেই শোরগোল পড়ে গিয়েছে রাজ্য শিক্ষা দফতরের অন্দরে। কীভাবে দিনের পর দিন ধরে এই অনিয়ম চালালেন অনামিকা, তা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন।

রাজ্য শিক্ষা দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, কস্তুরবা গান্ধী বালিকা বিদ্যালয় ছাড়াও উত্তরপ্রদেশের বিভিন্ন জেলায় অন্তত ২৫টি স্কুলে শিক্ষকতা করেন ওই শিক্ষিকা।

আম্বেদনগর, আমেঠি, রায়বরেলি, আলিগড়ের একাধিক স্কুলে পড়ান ওই অনামিকা শুক্লা নামে ওই শিক্ষিকা। ২৫টি স্কুলে পড়িয়ে গত ১ বছরে প্রায় ১ কোটি টাকা আয় করেছেন ওই মহিলা।

এক বছর ধরে চলা এই জালিয়াতি কোনওভাবে ফাঁস হয়ে যায়। তারপরই অভিযুক্ত শিক্ষিকার বেতন আটকে দিয়েছে রাজ্য শিক্ষা দফতর। ওই শিক্ষিকা কোন কোন স্কুলে গিয়ে পড়াতেন তার তালিকা তৈরি করে শিক্ষা দফতর অভ্যন্তরীণ তদন্ত শুরু করেছে। একইসঙ্গে অভিযুক্তকেও নোটিস পাঠানো হয়েছে।

Proshno Onek II First Episode II Kolorob TV