স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: বাংলায় লোকসভা ভোটের বাজার গরম করতে আসছেন যোগী আদিত্যনাথ৷ উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী সারা ভারতেই বিজেপির ‘হট প্রপার্টি৷’হিন্দুত্ব থেকে রামমন্দির বা গো-রক্ষক থেকে কুম্ভমেলা – যোগী এখন সর্বভারতীয় মিডিয়ার স্পটলাইটে রয়েছেন৷ কিছুদিন আগে একটি বেসরকারি সংস্থা যোগীকেই ভারতের সেরা মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেছে৷ বাংলায় যোগী আগে কখনও রাজনৈতিক ভাষণ দিয়েছেন বলে জানা যায় না৷ রাজ্য বিজেপির দাবি অনুযায়ী – বাংলায় প্রথম সভা করবেন যোগী৷

ফেব্রুয়ারির ৩ এবং ৫ তারিখ রাজ্যে সভা করবেন যোগী৷ ৩ তারিখ বাঁকুড়া এবং পুরুলিয়াতে সভা করার সম্ভাবনা রয়েছে যোগীর৷ ৫ তারিখ বালুরঘাট এবং রায়গঞ্জে তাঁর সভা হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে৷ যোগীর সভা ঘোষণা হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই রাজ্য বিজেপি কর্মীদের মধ্যে উৎসাহ-উদ্দিপনার রেশ ছড়িয়ে পড়েছে৷ গণতন্ত্র বাঁচাও যাত্রা বা রথযাত্রা উপলক্ষে অনেক আগেই বাংলায় সভা হওয়ার কথা ছিল যোগী আদিত্যনাথের৷ কিন্তু রথযাত্রার মতো যোগীর সভাও প্রায় ‘বিশ বাঁও জলে’চলে গিয়েছিল৷

তবে সব কিছুর পর যোদীর বাংলায় আগমণকে ঘিরে স্বপ্ন দেখছে বিজেপি৷ রাজ্য বিজেপির সদর দপ্তর ৬ নম্বর মুরলীধর সেন লেনে দাড়িয়ে এক বিজেপি সমর্থক যোগীর আগমনের খবর শুনে বললেন, ‘‘তৃণমূল কংগ্রেসের নাম নিশ্চয় বদলাতে চাইবেন যোগীজি…কারণ তৃণমূলকে তো গরুই খায়৷’’ তবে ৬ নম্বর মুরলীধর সেন লেনের বাসিন্দারা কোনও বিষয়কেই হালকা করে দেখতে চান না৷ অমিত শাহর সভার পর কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে যথেষ্ট উৎসাহ উদ্দিপনা বেড়েছে৷ যোগীর সভার ফলে তা আরও বাড়ুক – চান দিলীপ ঘোষরা৷