আবুধাবি: প্রথম লেগে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে হারিয়ে জয়ে ফিরেছিল কলকাতা নাইট রাইডার্স৷ টুর্নামেন্টের মাঝপথে অধিনায়কত্বের হাতবদল হয়েছে। দীনেশ কার্তিকের থেকে নেতৃত্বের দায়িত্বভার পেয়ে প্রথম ম্যাচ হারতে হয়েছে ইয়ন মর্গ্যানকে। চেন্নাই এবং পঞ্জাবের বিরুদ্ধে রুদ্ধশ্বাস জয় তুলে নেওয়ার শেষ দু’ম্যাচে হার। কলকাতা নাইট রাইডার্স শিবিরে হঠাতই বদলে গিয়েছে চেনা আত্মবিশ্বাসের ছবিটা। এরইমধ্যে রবিবাসরীয় আবুধাবির শেখ জায়েদ স্টেডিয়ামে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের মুখোমুখি নাইটরা।

খুব ভালো অবস্থায় নেই ডেভিড ওয়ার্নারের দলও। তারাও শেষ দু’টি ম্যাচে হেরে নামছে নাইটদের বিরুদ্ধে। প্রথম লেগে নাইটদের কাছে ৭ উইকেটে হেরেছিল সানরাইজার্সরা। খাতায়-কলমে বদলার ম্যাচে এদিন টস জিতে নাইটদের প্রথমে ব্যাটিংয়ে আমন্ত্রণ জানালেন সানরাইজার্স অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নার। দলে জোড়া পরিবর্তন নিয়ে এদিন নাইটদের বিরুদ্ধে মাঠে নামছে লিগ টেবিলে পঞ্চমস্থানে থাকা সানরাইজার্স।

ওয়ার্নারের দলে এদিন খলিল আহমেদের পরিবর্ত হিসেবে এলেন বাসিল থাম্পি। এছাড়া শাহবাজ নাদিমের জায়গায় দলে এলেন আব্দুল সামাদ। অন্যদিকে আট ম্যাচ খেলে ৮ পয়েন্টে দাঁড়িয়ে থাকা নাইট শিবিরেও জোড়া পরিবর্তন। তবে সুনীল নারিনকে বাইরে রেখেই দল সাজিয়েছেন তারা। ক্রিস গ্রিনের পরিবর্ত হিসেবে চলতি মরশুমে প্রথম ম্যাচটি খেলতে নামছেন কিউয়ি পেসার লকি ফার্গুসন। পাশাপাশি প্রসিদ্ধ কৃষ্ণার পরিবর্ত হিসেবে দলে এলেন চায়নাম্যান বোলার কুলদীপ যাদব।

গত দু’টো ম্যাচ হারের পর প্লে-অফের লড়াইয়ে থাকতে এই ম্যাচ ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ দু’দলের কাছে। এখন দেখার ওয়ার্নার-মর্গ্যান দ্বৈরথে মরুশহরে বাজিমাত করেন কে?

কলকাতা নাইট রাইডার্স একাদশ: শুভমান গিল, রাহুল ত্রিপাঠি, নিতিশ রানা, ইয়ন মর্গ্যান (অধিনায়ক), আন্দ্রে রাসেল, দীনেশ কার্তিক (উইকেটরক্ষক), প্যাট কামিন্স, লকি ফার্গুসন, কুলদীপ যাদব, বরুণ চক্রবর্তী, শিবম মাভি।

সানরাইজার্স হায়দরাবাদ একাদশ: ডেভিড ওয়ার্নার (অধিনায়ক), জনি বেয়ারস্টো (উইকেটরক্ষক), মনীশ পান্ডে, কেন উইলিয়ামসন, প্রিয়ম গর্গ, বিজয় শংকর, আব্দুল সামাদ, রশিদ খান, সন্দীপ শর্মা, বাসিল থাম্পি, টি নটরাজন।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।