কলকাতা: অজানা জ্বরে আতঙ্ক ছড়াল ক্যানিং মহকুমা৷ শুক্রবার পর্যন্ত এই জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ক্যানিং মহকুমা হাসপাতালে ৬০ জন রোগী ভরতি হয়েছেন বলে জানা গিয়েছে৷ রোগীর চাপে বেসামাল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ৷ প্রতিদিন বহির্বিভাগে মহকুমার বিভিন্ন জায়গা থেকে ৬০০ বেশি রোগী জ্বর নিয়ে দেখাতে আসছেন৷

বৈদ্যবাটি ও শ্রীরামপুর পুর এলাকায়ও ডেঙ্গুর প্রকোপ বাড়ছে৷ পুরসভার চারটি ওয়ার্ডে ইতিমধ্যেই প্রায় ১৫ জনের রক্তে ডেঙ্গুর জীবাণু পাওয়া গিয়েছে বলে জানা গিয়েছে৷ যাঁরা শ্রীরামপুরের বিভিন্ন নার্সিংহোমে চিকিৎসাধীন রয়েছেন৷ এছাড়াও আরও বেশ কয়েকজন জ্বরে আক্রান্ত৷ ডেঙ্গুর খবর ছড়িয়ে পড়তেই স্থানীয় বাসিন্দাদের মধ্যে আতঙ্ক দেখা দিয়েছে৷

পুরসভা সূত্রে জানানো হয়েছে, ডেঙ্গু প্রতিরোধের জন্য এবার বর্ষার আগে থেকেই লাগাতার অভিযান হচ্ছে৷ প্রতিটি ওয়ার্ডে সপ্তাহে তিন দিন করে মশা মারার তেল স্প্রে করা হচ্ছে৷ পাশাপাশি মানুষকে সচেতন করার জন্য প্রচারও চালছে৷ কিন্তু, তার পরও কেন ডেঙ্গুর আতঙ্কে ভুগছেন স্থানীয়রা? এবিষয়ে কিছুই জানাতে পারেনি পুরসভা৷