লন্ডন: ফের জামিন নাকচ হয়ে গেল নীরব মোদীর৷ এই নিয়ে তৃতীয়বারের জন্য জামিন নাকচ হয় পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক প্রতারণা মামলায় অভিযুক্তের৷

এদিন লন্ডনের ওয়েস্টমিনস্টার ম্যাজিস্ট্রেট আদালত জামিন নাকচ করায় আগামী ২৪ মে পর্যন্ত কারাগারেই থাকতে হবে নীরব মোদীকে৷ এই মামলার পরবর্তী শুনানি আগামী মাসের ৩০ তারিখ৷ সেদিন শরীরে আদালতে উপস্থিত থাকতে হবে পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক প্রতারণা মামলায় অভিযুক্তকে৷ এদিন ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আদালতে বক্তব্য রাখেন হিরে ব্যবসায়ী৷

আরও পড়ুন: আইএনএস বিক্রমাদিত্যে আগুনে পুড়ে মৃ্ত্যু নৌবাহিনীর অফিসারের

জানা গিয়েছে নীরব মোদীর আইনজীবী এদিন আদালতে তেমন কোনও নথি জমা দিতে ব্যর্থ হন৷ ফলে জামিন নাকচ হয়ে যায় অভিযুক্তের৷ নীরব মোদীর প্রত্যপর্ণের দাবি জানিয়েছে ভারত৷ ওয়েস্টমিনস্টার ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক এদিন ভারতের বিদেশ দফতরের প্রতিনিধিকেও প্রত্যপর্ণের জন্য প্রয়োজনীয় আরও বেশ কয়েকটি নথি জমা দেওয়ার নির্দেশ দেন৷

পাঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কে কয়েক হাজার কোটি টাকার প্রতারণায় অভিযুক্ত নীরব মোদী এবছরের শুরুর দিকে গ্রেফতার হয় লন্ডনে। লন্ডনের আদালতে নীরবের নামে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছিল।

আরও পড়ুন: রোহিত খুনে অপূর্বাকে বিচারবিভাগীয় হেফাজতের নির্দেশ আদালতের

এর আগে চলতি বছরের ১৯ মার্চ লন্ডনের ওয়েস্টমিনস্টার ম্যাজিস্ট্রেট আদালত নীরব মোদীর জামিন নাকচ করে দিয়েছিল৷ নীরব মামলার শুনানির জন্য এর আগে লন্ডনে গিয়েছিল ইডি ও সিবিআইয়ের একটি দল। এর আগে শুনানি পর্বে আদালতে নীরব মোদীর আইনজীবী জানিয়েছিলেন, তাঁর মক্কেল ২০১৮ সালের জানুয়ারি মাস থেকে ব্রিটেনে রয়েছেন। ব্রিটেনে স্বাধীন ভাবে বসবাস করেছেন এবং আত্মগোপনের চেষ্টা করেননি।

দ্বিতীয় শুনানির সময় আদালতের বিচারককে বলতে শোনা যায়, দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগরের ছোট্ট দ্বীপরাষ্ট্র ভানুয়াতুর নাগরিকত্ব পাওয়ার জন্য যেভাবে চেষ্টা চালাচ্ছেন নীরব মোদী, তাতেই স্পষ্ট, তিনি ভারত ছেড়ে পালিয়ে অন্যত্র থাকার চেষ্টা করছেন।