ম্যানিলা: আছড়ে পড়ল ভয়ঙ্কর টাইফুন। ক্রিসমাসে যখন গোটা বিশ্বের মানুষ আনন্দে মুখরিত, তখন ফিলিপিন্সে আছড়ে পড়ল ভয়ঙ্কর সাইক্লোন। প্রায় ঘন্টায় ১৮০ কিমি গতিবেগে আছড়ে পড়েছে সাইক্লোন ফানফোনে। জানা গিয়েছে, শক্তিশালী এই টাইফুনের আঘাতে এখনও পর্যন্ত ২০জনের মৃত্যু হয়েছে। নিখোঁজ বহু। টাইফুন ফানফোনের ধাক্কায় কয়েক লক্ষ মানুষ বিপদে।

সেন্ট্রাল ফিলিপিন্সে আছড়ে পড়ে সেই ঝড়। তার জেরে বন্দর ও সরকারি আশ্রয়ে রাখা হয়েছে বহু মানুষকে। বুধবার যখন বিশ্ব জুড়ে ক্রিসমাসের উৎসবের খুশি, আর মধ্যেই এই পরিস্থিতি ফিলিপিন্সে। টাইফুনের জেরে এলাকা বিদ্যুৎহীন, উপড়ে পড়েছে গাছ। উদ্ধারকারীর জানিয়ছেন, এখনও অনেক দ্বীপে পৌঁছতে পারেননি তাঁরা। বহু অঞ্চল প্রবল বণ্যায় জলের তলায়। ফলে মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।

২০১৩-তে সুপার টাইফুন হাইয়া আছড়ে পড়েছিল এই ফিলিপিন্সে। সেই একই পথে এসেছে এই ঘূর্ণিঝড়। ক্রিসমাস ইভে তাই ১৬০০০ মানুষ রাত কাটিয়েছেন, কোনও স্কুল, জিম বা সরকারি বিল্ডিংয়ে। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, সারা রাত আতঙ্কে কাটিয়েছেন তাঁরা। বারবার কাঁচ ভেঙে পড়ার শব্দ শোনা গিয়েছে। আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে যে ১৯৫ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টা বেগে মঙ্গলবার রাতে আছড়ে পড়েছে ঝড়। সারা রাস্তা জুড়ে পড়ে আছে গাছ। ফেরি সার্ভিস বন্ধ। ২৫০০০ মানুষ আটকে আছে দ্বীপে।

বিমান পরিষেবাও বন্ধ হয়েছে। ক্রিসমাসের আনন্দ দূরে থাক, রাত কেটেছে ইনস্ট্যান্ড নুডলস আর টিনে ভরা মাছ খেয়ে।