স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: বুধবার রাতে বাইপাস সংলগ্ল চিংড়িঘাটা মোড়ে গাড়ি দুর্ঘটনায় গুরুতর জখম হয়েছেন দুই ব্যাক্তি। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়ছেন তাঁদের অবস্থা আশঙ্কাজনক। স্পিডে থাকায় গাড়িটি মাঝ রাস্তায় উল্টে গিয়েই বিপত্তি বলে জানা গিয়েছে।

রাত বাড়লেই শুনশান হয় শহর কলকাতা। সঙ্গেই বাড়ে বাইক ও গাড়ি আরোহীদের আনাগোনা। শহরের বাইরে বাইপাস রোডটি এক্ষেত্রে বিশেষ পছন্দ গাড়ির চালক ও আরোহীদের। বাইপাশের ফাঁকা রাস্তায় প্রয়োজনাতিরিক্ত গাড়ি চালিয়ে অনেক সময়ই দুর্ঘটনার মুখে পড়েন চালক ও আরোহীরা। কিন্তু তাতেও কোনও হুঁস নেই। মাঝে মাঝেই দুর্ঘটনা ঘটছেন বইপাশে। তবুও কড়া ব্যবস্থা নিতে পারেনি প্রশাসন বলেই অভিযোগ। স্বাবাভিক ভাবেই রাতের শহরে পথদুর্ঘটনা একটি নিরবিছিন্ন ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বিবরণ থেকে জানা গিয়েছে বুধবার রাত্রি প্রায় ১টা নাগান একটি লালরঙের পাজেরো গাড়ি দুর্ঘটনার মুখে পড়ে। চিংড়িঘাটার কাছে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ডিভাইডারে ধাক্কা মেরে মাঝ রাস্তায় পাল্টি খায় গাড়িটি। মনে করা হচ্ছে স্পিডে থাকা গাড়িটিতে হঠাৎ চাকা ফেটে যাওয়াতেই এই দুর্ঘটনা। যার ফলে ভয়ঙ্করভাবে আহত হয়েছেন গাড়িতে থাকা দুই যুবক। প্রত্যক্ষদর্শীদের মধ্যে এক বড় অংশের দাবি দুর্ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারিয়েছেন গাড়িতে থাকা দুই যুবক। পুলিশের পক্ষ থেকে দুর্ঘটনাগ্রস্থদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।