নয়াদিল্লি: এবার সীমান্তেও আত্মনির্ভর ভারত। পূর্ব লাদাখে চিনা সেনার ওপর নজর রাখতে দেশে তৈরি লাইট কমব্যাট হেলিকপ্টার মোতায়েন করল ভারত। এই ধরমের দুটি কপ্টার মোতায়েন করা হয়েছে বলে জানানো হয়েছে। হ্যাল বা হিন্দুস্তান এয়ারোনটিকস লিমিটেডের তৈরি এই স্বল্প ওজনের হেলিকপ্টার অতি উচ্চতায় বায়ুসেনার নজরদারিতে সাহায্য করবে বলে জানানো হয়েছে।

লাইট কমব্যাট হেলিকপ্টার বা এলসিএইচ ভারতীয় বায়ুসেনার হাই অল্টিটিউড মিশনগুলিতে কাজ করবে। বুধবার এক ট্যুইট বার্তায় হ্যাল এই তথ্য দিয়েছে। জানা গিয়েছে লাদাখে সবচেয়ে বিপদসংকুল হেলিপ্যাডে অবতরণ করতে সক্ষম এই কপ্টার দুটি।

হালকা ওজনের হওয়ায় খুব দ্রুত চলাচলের ক্ষমতা রয়েছে এলসিএইচের। লাদাখের পার্বত্য ও জটিল অবস্থানগুলিতে দ্রুত কাজ করতে সক্ষম এলসিএইচ। পাশাপাশি এলসিএইচের যে কোনও তাপমাত্রায় কাজ করার ক্ষমতা রয়েছে।

এলসিএইচ দিন বা রাতে নিখুঁত নিশানায় কাজ করে। প্রচুর অস্ত্র বহন করার ক্ষমতা রাখে এই কপ্টারগুলি। এই বৈশিষ্ট্যগুলি এলসিএইচকে বায়ুসেনার উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ ও অধিক উচ্চতার অপারেশনে সাহায্য করে। সম্পূর্ণ দেশীয় পদ্ধতিতে তৈরি এলসিএইচ লাদাখে বায়ুসেনার শক্তি বৃদ্ধি করতে সাহায্য করবে বলে আশা করা হচ্ছে।

এদিকে, ১০ই অগাষ্ট থেকে শুরু হয়েছে আত্মনির্ভর ভারত সপ্তাহ। এর প্রথম পদক্ষেপ এলসিএইচ মোতায়েন। প্রতিরক্ষা মন্ত্রক জানিয়ে ছিল দেশের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ধীরে ধীরে সাবলম্বী হয়ে উঠবে।

এক ট্যুইট বার্তায় প্রতিরক্ষা মন্ত্রীর অফিস জানায়, অস্ত্র আমদানির ক্ষেত্রে বিশ্বে ভারত রয়েছে দ্বিতীয় স্থানে। অস্ত্র রফতানিতে ২৩ নম্বর স্থানে রয়েছে ভারত। প্রধানমন্ত্রী মোদী আগামী পাঁচ বছরে প্রতিরক্ষা রফতানিতে ৫বিলিয়ন ডলারের লক্ষ্যমাত্রা রেখেছেন। তাঁর আশা ভারত আগামী পাঁচ বছরে অর্থাৎ ২০২৫ সালের মধ্যে ১.৭৫ লক্ষ কোটি টাকার প্রতিরক্ষা সরঞ্জাম রফতানি করতে সক্ষম হবে।

২০১৫ থেকে ২০২০-র মধ্যে তিন বাহিনীতে এরকম অন্তত সাড়ে ৩ লক্ষ টাকার অস্ত্র ও সরঞ্জাম আমদানি করা হয়েছে। এবার এই সিদ্ধান্তের পর ভারতীয় সংস্থাই ৪ লক্ষ টাকার বরাত পাবে আগামী ৬-৭ বছরে।

ওই ১০১ টি জিনিসের তালিকায় রয়েছে আর্টিলারি গান, কমব্যাট হেলিকপ্টার, অ্যাসল্ট রাইফেল, কভার্ট, রাডার, সশস্ত্র গাড়ি, ট্রান্সপোর্ট এয়ারক্রাফট সহ একাধিক উচ্চপ্রযুক্তিসম্পন্ন অস্ত্র। এবার থেকে এসবই তৈরি হবে ভারতে। মোট ১০১ টি সরঞ্জাম আমদানি করার ক্ষেত্রে এই সিদ্ধান্ত বলবৎ করা হচ্ছে।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও