ভোপাল : মারণ করোনায় কাঁপছে গোটা দেশ। বছর ঘুরলেও স্বস্তি নেই। ফের মারণ ব্যাধির দ্বিতীয় ধাক্কায় বেসামাল জনজীবন। পরিস্থিতি ভয়াবহ। এই অবস্থায় আশঙ্কার মধ্যে যেন আশার আলো দেখাচ্ছে ভ্যাকসিনের প্রয়োগ। করোনার হাত থেকে বাঁচতে গত জানুয়ারি মাস থেকেই দেশজুড়ে শুরু হয়েছে টিকা প্রদানের কাজ।

ইতিমধ্যে দ্বিতীয় দফার ডোজ দেওয়া শুরু হয়ে গিয়েছে। ১ মে থেকে শুরু হয়ে গিয়েছে তৃতীয় দফার টিকাকরণের কাজ। করোনা থেকে বাঁচতে দেশজুড়ে বেশ জোড়কদমে চলছে এই টিকাদান উৎসব৷

তবুও প্রয়োজনের তুলনায় ঘাটতি রয়েছে ভ্যাকসিনের পরিমাণে। চাহিদামতো ভ্যাকসিন মিলছে না। ভ্যাকসিন ইস্যু নিয়ে বাজারে রয়েছে নানারকম সমস্যা। আর এই ভ্যাকসিনের আকালের মধ্যে মধ্যপ্রদেশের নরসিংপুর জেলার কারোলি বাস টার্মিনালের ধারে পরিত্যক্ত অবস্থায় খোঁজ মিলল ভ্যাকসিন ভরতি একটি ট্রাকের।

এই বিষয়ে কারোলি পুলিশ জানিয়েছেন, পরিত্যক্ত ওই ট্রাকটি থেকে ২,৪০,০০০ ডোজের ভারত বায়োটেকের তৈরি কোভ্যাক্সিন পাওয়া গিয়েছে। যেগুলির বর্তমান বাজারমূল্য প্রায় ৮ কোটি টাকা। মনে করা হচ্ছে ভ্যাকসিনগুলি কোথাও পাঠানোর জন্য ট্রাকে লোড করা হয়েছিল। এছাড়াও গাড়ির ভিতর এসি চলছিল। ফলে মনে করা হচ্ছে ভ্যাকসিনগুলি সুরক্ষিত রয়েছে। তবে কেন মাঝপথে ট্রাক ফেলে চালক আর খালাসী বেপাত্তা তা নিয়ে ধন্ধে পুলিশ। গোটা ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে ওই এলাকায়।

এদিকে ঘটনায় চালক ও খালাসীর সন্ধান পেতে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ। জানা গিয়েছে, ট্রাক চালকের মোবাইলের লোকেশন ট্রেস করে ধরার চেষ্টা করা হলেও তা ব্যর্থ হয়।

এই বিষয়ে কারোলি থানার সাব ইন্সপেক্টর আশীষ বোপাচে জানিয়েছেন, ওই ট্রাক চালকের ফোনটি হাইওয়ের ধারে একটি ঝোপের মধ্যে থেকে পাওয়া গিয়েছে। তবে এই মুহুর্তে চালক ও খালাসীর কোনও খোঁজ না পাওয়া গেলেও অতিদ্রুত তাদের খুঁজে বের বিপুল পরিমাণের এই ভ্যাকসিন রহস্য সমাধানের চেষ্টা শুরু করেছে পুলিশ।

অন্যদিকে, দেশে যেভাবে লাফিয়ে লাফিয়ে করোনা সংক্রমিত রোগীর সংখ্যা বাড়ছে তাতে অতিমারীর শৃঙ্খল ভাঙতে ইতিমধ্যে দেশের বিভিন্ন রাজ্যে শুরু হয়ে গিয়েছে দফায় দফায় লকডাউন।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৪ লক্ষ ১ হাজার ৯৯৩ জন। এখনও পর্যন্ত দেশে মোট আক্রান্ত হয়েছে ১ কোটি ৯১ লক্ষ ৬৪ হাজার ৯৬৯ জন। করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা ছাড়িয়ে গিয়েছে সাড়ে তিন হাজার। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনার বলি হয়েছেন ৩ হাজার ৫২৩ জন। সব মিলিয়ে দেশে এখনও পর্যন্ত ২ লক্ষ ১১ হাজার ৮৫৩ জনের মৃত্য হয়েছে। অ্য়াক্টিভ মামলার সংখ্যা ৩২ লক্ষ ৬৮ হাজার ৭১০। গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২ লক্ষ ৯৯ হাজার ৯৮৮ জন। এখনও পর্যন্ত সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন মোট ১ কোটি ৫৬ লক্ষ ৮৪ হাজার ৪০৬ জন। এখনো পর্যন্ত ১৫ কোটি ৪৯ লক্ষ ৮৯ হাজার ৬৩৫ জনকে টিকাকরণ করা হয়েছে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.