আগরতলা: তিনদিকে আন্তর্জাতিক সীমান্ত ঘেরা ত্রিপুরা। তিন দিকেই বাংলাদেশ। প্রতিবেশী দেশ থেকে সীমান্ত পেরিয়ে অনুপ্রবেশের ব্যবসায় জড়িত রাজ্যের মন্ত্রী। এমনই চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করলেন সরকারে থাকা দল বিজেপির এক সদস্য। তাঁর অভিযোগ ভিডিও সোশ্যাল সাইটে ভাইরাল। প্রবল অস্বস্তিতে পড়েছে সরকার।

প্রশ্ন উঠছে, বিজেপি ও তার বিভিন্ন সমনস্ক সংগঠন বারবার বাংলাদেশ থেকে অনুপ্রবেশের অভিযোগ তুলে ধরে। এবার সেই দলেরই এক সদস্যের অভিযোগ ঘিরে মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব নেতৃত্বাধীন রাজ্য মন্ত্রিসভায় শোরগোল পড়েছে।

অভিযোগকারীর নাম অমল গোপ। তিনি নিজেকে বিজেপির সক্রিয় সদস্য বলে দাবি করেছেন। তাঁর অভিযোগ, মন্ত্রী মনোজ কান্তি দেব জড়িত বাংলাদেশ থেকে অনুপ্রবেশ করানোর ব্যবসায়।

মনোজ কান্তি দেব ত্রিপুরার ক্রীড়া ও যুবকল্যাণ মন্ত্রী। তিনি একইসঙ্গে খাদ্যমন্ত্রীর দায়িত্বে রয়েছেন। হেভিওয়েট মন্ত্রী তথা বিজেপি নেতার বিরুদ্ধেই সীমান্ত পাচারের অভিযোগ তুলেছেন দলীয় সদস্য অমল গোপ।

অমল গোপের আরও অভিযোগ, বিষয়টি মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব কে চিঠি দিয়ে জানিয়েছি। কোনও উত্তর পাইনি। রাজ্যের দুই লোকসভা সাংসদ প্রতিমা ভৌমিক ও রেবতী বর্মণকেও জানিয়েছি।

মন্ত্রীর বিরুদ্ধে বাংলাদেশ থেকে পাচার ও অনুপ্রবেশের ব্যবসা চালানোর অভিযোগ ঘিরে আগরতলা সহ ত্রিপুরার রাজনৈতিক মহল গরম। যদিও এই বিষয়ে মন্ত্রী মনোজ কান্তি দেব নীরব।

এদিকে বিজেপি কর্মী অমল গোপের আরও অভিযোগ, মন্ত্রীর বিরুদ্ধে মুখ্যমন্ত্রী কে সব জানানোর পর থেকে বেশ কয়েকবার আক্রান্ত হতে হয়েছে। পরিবারের বাকি সদস্যরা কমবেশি আক্রান্ত।তিনি বলেন, হামলাকারীরা বারবার বলেছে, কেন মুখ্যমন্ত্রীর কাছে চিঠি দিয়েছি।

এমনিতেই করোনা পরিস্থিতি নিয়ে রাজ্য সরকার জেরবার। বিরোধী সিপিআইএম ও কংগ্রেস বারাংবার সরকারের সমালোচনায় সরব। খোদ প্রাক্তন স্বাস্থ্যমন্ত্রী তথা হেভিওয়েট বিজেপি নেতা সুদীপ রায় বর্মণ সরকারের প্রবল সমালোচনা করছেন প্রতিনিয়ত।

এই অবস্থায় সংবাদ মাধ্যমে করোনা মোকাবিলা নিয়ে সরকারের সমালোচনায় ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী। তিনি হুঁশিয়ারি দেন সংবাদ মাধ্যমকে। এর পরে সাংবাদিকরা আক্রান্ত হন। সাংবাদিক সংগঠনগুলো মুখ্যমন্ত্রী কে বক্তব্য প্রত্যাহার করার দাবি করেছে।

এসবের মাঝে মন্ত্রীর বিরুদ্ধে বাংলাদেশ থেকে পাচার ও অনুপ্রবেশের অভিযোগ আরও বিতর্ক তৈরি করল। সম্প্রতি বিচ্ছিন্নতাবাদী সশস্ত্র সংগঠন এনএলএফটি সদস্যরা ধরা পড়ে। পরে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা বিরোধী নেতা মানিক সরকার বলেন, আন্তর্জাতিক সীমান্তের অনুপ্রবেশ হচ্ছে। সরকার কড়া ভূমিকা নিক।

এবার বিজেপির সমর্থক অমল গোপ সরাসরি মন্ত্রীর বিরুদ্ধে সীমান্ত পাচারের অভিযোগ তুলে শোরগোল ফেলে দিলেন।

সপ্তম পর্বের দশভূজা লুভা নাহিদ চৌধুরী।