স্টাফ রিপোর্টার, মালদহ: প্রতিমা বিসর্জন দিতে গিয়ে মর্মান্তিক মৃত্যু হল এক প্রৌঢ়ের। ঐতিহ্যবাহী কালী প্রতিমা পরম্পরা মেনে বির্সজন দিতে নামানোর সময়ে কাঠামোর নীচে চাপা পড়ে মৃত্যু হয় তাঁর। ঘটনাটি ঘটেছে রবিবার মালদহের হবিবপুর থানার বুলবুলচণ্ডী এলাকায়। পুলিশ জানিয়েছে মৃতের নাম হারু সিংহ(৫৫)। বাড়ি হবিবপুর থানার বাজারপাড়া এলাকায়। মৃতদেহ ময়না তদন্তে পাঠিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। এদিকে কাঠামোর নীচে চাপা পড়ে পৌঢ়ের মৃত্যুর ঘটনায় বুলবুলচন্ডী এলাকা জুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, দুর্গা পুজোর পরে প্রথা মেনে বুলবুলচণ্ডী এলাকায় বিশালাকার ৪৭ ফুট কালী প্রতিমার পুজো হয়। পার্শবর্তী এলাকায় এই পুজো উপলক্ষ্যে ১৫ দিন ধরে মেলাও চলে। প্রতিমা দর্শনে মালদহ জেলা-সহ জেলার বাইরে থেকেও বহু মানুষ ভিড় করেন এখানে। জানা গিয়েছে, রবিবার ছিল প্রতিমা ভাসানোর দিন।

বিশালাকার এই কালী দক্ষিণাকালী নামেই পরিচিত। বিসর্জনের সময়ে মণ্ডপ থেকে প্রায় ৫০০ মিটার দূরে একটি পুকুরে বিসর্জন করা হয়। প্রতিমার কাঠামোর নীচে কোনও চাকা থাকে না। বাঁশের উপরে রেখে টেনে নিয়ে গিয়ে স্থানীয় ওই পুকুরে প্রতিমা বিসর্জন করা হয়। এদিন প্রতিমা ভাসানের জন্য মণ্ডপ থেকে নামানো হচ্ছিল। সেই সময়ে তিনিও অন্যদের মতো কাজে ব্যস্ত ছিলেন। আচমকা সবার অলক্ষ্যে মা কালীর পাটাতনের নীচে পড়ে যান হারু সিং।

প্রতিমা সরাতেই স্থানীয়রা তাঁকে দেখতে পান। তখনই তড়িঘড়ি করে তাঁকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য স্থানীয় আর এন রায় প্রাথমিক চিকিৎসা কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। জানা গিয়েছে পরে তাঁর অবস্থা খারাপ হওয়ায় তাঁকে মালদহ মেডিক্যাল কলেজ অ্যান্ড হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসা হলে সেখানে তাঁর মৃত্যু হয়।

পপ্রশ্ন অনেক: একাদশ পর্ব

লকডাউনে গৃহবন্দি শিশুরা। অভিভাবকদের জন্য টিপস দিচ্ছেন মনোরোগ বিশেষজ্ঞ।