ধরমশালা: ওয়ান ডে বিশ্বকাপের পর আইসিসি ওয়ার্ল্ড টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ যদি টিম ইন্ডিয়ার কাছে প্রাধান্য পেয়ে থাকে, তবে আগামী বছর টি-২০ বিশ্বকাপের প্রস্তুতির দিকেও একই সঙ্গে নজর রয়েছে ভারতীয় দলের৷ দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ঘরের মাঠে টি-২০ সিরিজ দিয়ে ২০২০ টি-২০ বিশ্বকাপের প্রস্তুতি শুরু করছে ভারত৷ সেই লক্ষ্যেই তরুণ ক্রিকেটারদের একটা পুলকে ভারতীয় দলে ঢুকিয়ে দিয়েছেন নির্বাচকরা৷ নিজের মধ্যে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিশ্বকাপের টিকিট নিশ্চিত করার লক্ষ্যেই মাঠে নামবেন শ্রেয়স আইয়ার, ক্রুণাল পান্ডিয়া, নভদীপ সাইনি, খলিল আহমেদ, চাহার ভাইদের মতো নবাগতরা৷ দেখার বিষয় যে প্রথম সুযোগেই কারা নিজেদের প্রভাবশালী প্রমাণিত করতে পারেন৷

আরও পড়ুন: ‘স্বার্থ-সংঘাত’ ইস্যুতে সৌরভকে ‘বেনিফিট অফ ডাউট’ দিলেন এথিক্স অফিসার

যদিও ধরমশালায় সিরিজের প্রথম টি-২০ ম্যাচের উপর বড়সড় প্রশ্নচিহ্ন ফেলে দিল বৃষ্টি৷ ম্যাচের ঠিক আগে প্রবল বৃষ্টিতে পিছিয়ে গেল টস টাইম৷ ভারতীয় সময় অনুযায়ী সন্ধ্যা ৬টা ৩০মিনিটে টস অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল৷ বৃষ্টিতে মাঠ ঢাকা থাকায় যথা সময়ে টসের জন্য মাঠে নামা সম্ভব হয়নি ম্যাচ অফিসিয়াল ও দুই ক্যাপ্টেনের৷

আরও পড়ুন: ধোনিকে নিয়ে টুইটের ব্যাখ্যা দিলেন কোহলি

ব্যাটিং লাইনআপ নিয়ে খুব একটা পরীক্ষা নিরীক্ষায় না-গেলেও ভারত তিন ম্যাচের এই টি-২০ সিরিজে বিশ্রাম দিয়েছে জসপ্রীত বুমরাহ, মহম্মদ শামি ও ভুবনেশ্বর কুমারের মতো সিনিয়র পেসারদের৷ পরিবর্তে পেস আক্রমণে নিয়ে এসেছে নভদীপ সাইনি, খলিল আহমেদ ও দীপক চাহারকে৷ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিতান্ত অনভিজ্ঞ ভারতের এই পেস অ্যাটাক৷

আরও পড়ুন: ধোনিকে ছাড়ায় প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে বিশ্বকাপের প্রস্তুতি বিরাটদের

ব্যাটিংয়ের দিকে তাকালে মহেন্দ্র সিং ধোনি এই সিরিজে ভারতীয় দলে নেই৷ শ্রেয়স আইয়ার, মণীশ পান্ডেদের সামনে বিশ্বকাপের জন্য জাতীয় নির্বাচকদের গুড বুকে ঢুকে পড়ার সুবর্ণ সুযোগ রয়েছে৷ টেস্ট দল থেকে বাদ পড়ার পর লোকেশ রাহুলের সামনে চ্যালেঞ্জ সীমিত ওভারের দলে টিকে থাকার৷