চুল পড়ার ও চুল নষ্ট হওয়ার সমস্যায় আমরা সকলেই ভুগি। অনেক উপায় করেও সেই পুরোনো হাল ও রূপ ফেরানো যায় না চুলের। শেষে আর কী করা যায় এই ভেবেই দিন খারাপ হচ্ছে আপনার? চিন্তা নেই। নীচে রইলো আপনার জন্যেই এমন কিছু টিপস যা কাজ করবে গ্যারান্টি। এই উপাদানগুলি আপনি বাড়িতে সহজেই কিনতে পারবেন।

১.এভোকাডো আর দইয়ের মিশ্রণ: এভোকাডোতে আছে ভিটামিন বি ও ই যা চুলকে পুষ্টি যোগায়। দই হলো কন্ডিশনার। দুটোকে মিশিয়ে ৪০-৪৫ মিনিট পর শ্যাম্পু করে নেবেন।

২. এপেল সিডার ভিনিগার: এতে অল্প এসিড থাকায় রুক্ষ চুলকে মুহূর্তেই করবে চকচকে। এটিকে জলের সঙ্গে মিশিয়ে লাগাবেন শ্যাম্পু করার সময়েই। সপ্তাহে একদিন করবেন এটি।

৩. বাদাম তেল ও ডিম: ডিমে প্রচুর প্রোটিন থাকায় চুল নরম করতে সাহায্য করে। এর সঙ্গে অল;প বাদাম তেল মেশালেই কাজ ষোলয়ানা শেষ। একটা ডিমের সঙ্গে ৪ ভাগের ১ ভাগ তেল মেশান। স্কাল্পে লাগান। ৪০-৪৫ মিনিট পর জল ডাকিয়ে ধুয়ে ফেলুন। অনলাইনে আপনি অনেক ব্র্যান্ডের তেল পাবেন। আপনার জন্যে রইলো এই লিংক।

৪. কলা ও মধুর প্রলেপ:কলা চুলের কন্ডিশনার হিসেবে খুব ভালো কাজ করে। এর সঙ্গে মেশান মধু। এই মধু চুলের আদ্রতা ধরে রাখে। তাই চুলের রুক্ষতা দূর করতে দুটোই ভালো। কলাটিকে ভালো করে পিষে নিন। ২ চা চামচ মধু দিন এতে আর ৩ভাগের ১ ভাগ নারকেল তেল দেবেন। পুরো চুলে লাগান। ২০-২৫ মিনিট পর ঠান্ডা জলে ধুয়ে নিন চুল। সপ্তাহে একবার এটা করলেই চলবে।

৫. বিয়ার: চুলের আদ্রতা ফিরিয়ে আনতে পারে বিয়ার। এর ফলে চুলের উজ্জ্বলতা ফিরে আসে। একটি বাটিতে ঢেলে সারারাত রেখে দিন ঢাকা দিয়ে। শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে এরপর উপর থেকে ঢালতে থাকুন বিয়ার। স্কাল্পে আস্তে আস্তে ম্যাসাজ করুন। ঠান্ডা জলে ধুয়ে ফেলুন আপনার চুল। সপ্তাহে দুইবার করতে পারেন এটি।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.