দিনহাটা: দলেরই একাংশ তাঁকে হারানোর চক্রান্ত করছে, চাঞ্চল্যকর অভিযোগ দিনহাটার তৃণমূল বিধায়ক উদয়ন গুহর। সম্প্রতি দলের এক বৈঠকে তিনি এই আশঙ্কার কথা জানিয়েছেন। শুধু তাই নয়, ২০২১ সালের বিধানসভা নির্বাচনে তিনি আর প্রার্থী হতে চান না বলেও সাফ জানিয়ে দিয়েছেন দলীয় নেতৃত্বকে।

২০২১ সালের বিধানসভা ভোটের টিকিট পাওয়া নিয়ে করোনা আবহেও তৃণমূল বিধায়কদের একে অপরকে টেক্কা দেওয়ার চেষ্টা তুঙ্গে। এবার শাসকের অস্বস্তি বাড়ালেন দিনহাটার তৃণমূল বিধায়ক উদয়ন গুহ। দলীয় বৈঠকে দলেরই একাংশের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন উদয়ন। তাঁর দাবি, দলেই তাঁকে হারানোর জন্য চক্রান্ত চলছে। তাই আগামী বিধানসভা নির্বাচনে তিনি আর প্রার্থী হতে চান না।

ফরওয়ার্ড ব্লক ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিলেও সময়টা শুরু থেকেই ভালো যায়নি উদয়ন গুহর। প্রায়ই দলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বে জেরবার হয়েছেন। যা নিয়ে তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কেও একাধিকবার দ্বন্দ্ব মেটাতে হস্তক্ষেপ করতে হয়েছে।

এবার কোচিবহারের একাধিক নেতার বিরুদ্ধে আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগ তুলেছেন দিনহাটার তৃণমূল বিধায়ক উদয়ন গুহ। জেলার বহু নেতা চাকরি দেওয়ার নাম করে আমজনতার টাকা আত্মসাৎ করেছেন বলে অভিযোগ উদয়নের।

এরই পাশাপাশি এবার দলেরই একাংশের বিরুদ্ধ তাঁকে বিধানসভা ভোটে হারানোর চক্রান্ত চলছে বলে অভিযোগ করলেন উদয়ন গুহ। এমনকী সম্প্রতি দলের এক গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে কোচবিহারের প্রভাবশালী এক তৃণমূল নেতার নাম নিয়েই অভিযোগ করেছেন তিনি। উদয়নের অভিযোগ, ওই নেতা নাকি তাঁকে হারানোর জন্য কোটি টাকা খরচ করার পরিকল্পনা নিয়েছেন।

কোচবিহারে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব একাধিকবার প্রকাশ্যে এসেছে। এর আগে শাসকদলের দুই গোষ্ঠী একাধিকবার সংঘর্ষে জড়িয়েছে। কখনও দিনহাটা কখনও আবার মাথাভাঙায় তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষ ঘিরে রণক্ষেত্রের চেহারা নিয়েছে এলাকা। এবার খোদ বিধায়কের দলেরই একাংশের বিরুদ্ধে এই বিস্ফোরক অভিযোগ বিধানসভা ভোটের আগে তৃণমূলের অস্বস্তি যে বাড়াল তা বলাই বাহুল্য।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ