স্টাফ রিপোর্টার, মালদহ: এলাকার গ্রাম পঞ্চায়েত কোনও কাজ করেনি। গ্রামবাসীরা সরকারি সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত হয়েছে। দিদিকে বল কর্মসূচিতে গিয়ে গ্রামবাসীদের একাধিক অভিযোগের ক্ষোভের মুখে পড়লেন তৃণমূলের জেলার কার্যকরী সভাপতি দুলাল সরকার।

পঞ্চায়েতের দুর্নীতি নিয়ে গ্রামবাসীরা তার কাছে একাধিক অভিযোগ করেন। দু’মাসের মধ্যে তড়িঘড়ি সমস্ত কাজ করার নির্দেশ দেন জেলার কার্যকরী সভাপতি৷ ঘটনাস্থলে দাঁড়িয়েই গ্রাম পঞ্চায়েতকে এই নির্দেশ দেন তিনি৷

ইংরেজবাজারের নরহাট্টা গ্রাম পঞ্চায়েত। এই এলাকার লক্ষ্মী ঘাটে দিদিকে বল কর্মসূচির প্রচার করতে গিয়েছিলেন দুলাল বাবু। গ্রাম পঞ্চায়েতগুলি দুর্নীতি করছে। সরকারি সুযোগ-সুবিধা পাওয়া যাচ্ছে না। গ্রামবাসীরা প্রকাশ্যেই তার কাছে এই অভিযোগ তুলতে শুরু করেন। চরম অস্বস্তিতে পড়েছেন দুলাল সরকার।

পরে দলীয় গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্যদের ভূমিকা নিয়ে রীতিমতো ক্ষোভ উগরে দেন সংবাদমাধ্যমের সামনে তিনি।
তবে এই ইস্যু নিয়ে বিজেপির মালদহ জেলার সহ-সভাপতি অজয় গঙ্গোপাধ্যায় তৃণমূলকে রীতিমত কটাক্ষ করেছেন।