স্টাফ রিপোর্টার, নন্দীগ্রাম : শুক্রবার বিকেলে তমলুক লোকসভার তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী দিব্যেন্দু অধিকারীর সমর্থনে পর পর তিনটি পদযাত্রা হয়৷ এই মিছিলগুলি বের হয় নন্দীগ্রাম ২ ব্লকের খোদামবাড়ি, আমদাবাদ এবং বিরুলিয়াতে।

প্রত্যন্ত গ্রামের অলিগলিতে চরকি পাক খাওয়া দিব্যেন্দু ভোট প্রচারে কার্যত ঝড় তোলেন এদিন। প্রতিটি পদযাত্রাতে ভিড় ছিল চোখে পড়ার মত। কোথাও ঢাকি, ব্যান্ড পার্টি নিয়ে আবার কোথাও শুধু দলীয় স্লোগানেই পদযাত্রা বের হয়। পদযাত্রা দেখার জন্য রাস্তার দু’ধারে মানুষের ঢল নামে।

দিব্যেন্দু হাত নাড়িয়ে তাঁদের সমর্থন আদায়ের চেষ্টা করেন। অনেকেই আবার এগিয়ে এসে তাঁর সঙ্গে হাত মেলান। প্রার্থীকে দেখার পাশাপাশি ফুল ছিটিয়ে তাঁকে অভ্যর্থনা জানান মহিলারা। শিব মন্দিরে পুজো দিয়ে খোদামবাড়িতে প্রথম পদযাত্রা সংগঠিত করেন দিব্যেন্দু।

খোদামবাড়ি তৃণমূল কার্যালয় থেকে শুরু হয়ে কয়েক হাজার মানুষের এই পদযাত্রা শেষ হয় রেয়াপাড়া বড়পুলের কাছে। দিব্যেন্দু বলেন,”মানুষের স্বতঃস্ফূর্ত উচ্ছ্বাসই জানান দিচ্ছে এই এলাকার ভোটের ফলাফল কেমন হবে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত শক্ত করতে এবং শান্তি ও উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে মানুষের কাছে ভোট আবেদন জানাচ্ছি। ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি।”

তাঁর দাবি, এবার অনেক বেশি মার্জিনে জয়ী হবেন তিনি। প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী বিজেপি-র সিদ্ধার্থ নস্কর বৃহস্পতিবার নন্দীগ্রামে প্রচারে গিয়ে তৃণমূল কর্মীদের গাছে বেঁধে মারার হুমকি দিয়েছিলেন। বিজেপি প্রার্থীর সেই মন্তব্যের জবাবে এদিন দিব্যেন্দু বলেন,”উনি ক্ষমতার দিবাস্বপ্ন দেখছেন। আগে ক্ষমতায় আসুন তারপর না হয় মারবেন।”