অভিযোগকারিনী, বিজেপির এজেন্ট

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা : ভোট পরবর্তী হিংসা অব্যাহত সল্টলেকে । কিছু দিন আগে বিধাননগরে বিজেপি কর্মীদের বাড়ি ভাঙচুর করা হয়। সোমবার সকালে বিজেপির দুই এজেন্টকে মারধর করা হয় । অভিযোগের তির তৃণমূলের দিকে। পাল্টা অভিযোগ তৃণমূলের। উভয় পক্ষই পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করেছে।

অভিযোগ, বিজেপির বিধাননগর দক্ষিণ মন্ডলের মহিলা মোর্চার প্রেসিডেন্ট সুমিত্রা আদিত্য আজ সকালে তার বাচ্চা ও স্বামীকে নিয়ে দুর্ঘটনায় আহত পরিচিতকে দেখতে যান। সুমিত্রা জানান, সেখানে বসার সঙ্গে সঙ্গে স্থানীয় কাউন্সিলর নির্মল দত্তের দলবল এসে ঘিরে ধরে। এবং তার স্বামীকে টেনে নিয়ে যায়। মহিলারা ওই এজেন্টকে ঘিরে ধরে মারধর করে। এমন কি ধর্ষণ করা বলেও হুমকি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ।

পড়ুন: ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার বাংলার জনপ্রিয় গায়ক সৌম্য

অন্যদিকে বিধাননগর পুরসভার ৩৮ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলর নির্মল দত্তের দাবি, তাদের বিরুদ্ধে যে অভিযোগ করা হচ্ছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা। তিনি পাল্টা অভিযোগ করেন, ‘ওরাই সাধারণ মানুষকে হুমকি দিচ্ছিল। এলাকার পার্টি অফিস ও ক্লাব দখল করে নেবে বললেই সেখানে উত্তেজনা দেখা দেয়। বিষয়টি আমি পুলিশকে জানাই। পুলিশ গিয়ে তাঁদেরকে উদ্ধার করে।’

প্রসঙ্গত, ভোটের দিন পোলিং এজেন্ট ছিলেন সুমিত্রা আদিত্য ও তার স্বামী রাজু আদিত্য। সেদিন তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা রাজুকে তুলে নিয়ে আটকে রেখে মারধর করে বলে অভিযোগ। ভোটের দিন সুমিত্রাকে বুথ ছাড়তে বাধ্য করেছিল। এমনটাই তাদের অভিযোগ। বিধাননগর দক্ষিণ থানায় উভয় পক্ষই অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।