নয়াদিল্লি : ৩০ জুন থেকে শুরু করে ৭ জুলাই পর্যন্ত-টানা ৮ দিন অপরিবর্তিত থাকল পেট্রলের দাম। এদিনও পেট্রোলের দাম বাড়েনি। তবে লিটারে দামি হয়েছে ডিজেল। সর্বত্রই এই দাম বৃদ্ধি পেয়েছে।

মঙ্গলবার কলকাতায় লিটারপিছু পেট্রোলের দাম ৮২.১০ টাকা। ডিজেলের দাম ২৫ পয়সা বেড়ে হয়েছে ৭৫.৬৪ টাকা থেকে হয়েছে ৭৫.৮৯ টাকা। দিল্লিতে লিটারপিছু পেট্রলের দাম হয়েছিল ৮০.৪৩ টাকা। এখানেও ডিজেলের দাম ২৫ পয়সা বেড়ে ৮০.৫৩ টাকা থেকে হয়েছে ৮০.৭৮ টাকা। ।
চেন্নাইয়ে পেট্রোলের দাম রয়েছে ৮৩.৬৩ টাকা , ডিজেলের দাম ৭৭.৭২ থেকে ১৯ পয়সা বেড়ে ৭৭.৯১ টাকা হয়েছে। মুম্বইয়ে পেট্রোলের দাম ৮৭.১৯ টাকা, ডিজেলের দাম ৭৮.৮৩ টাকা থেকে ২২ পয়সা বেড়ে ৭৯.০৫ টাকা হয়ে গিয়েছে।

সাধারণত দেশে সাধারণত পেট্রলের দাম অনেকটাই বেশি থাকে ডিজেলের থেকে। দেশের বেশিরভাগ জিনিসপত্র সরবরাহকারী ট্রাক চলে ডিজেলে। এ ছাড়াও চলে বাস, ট্যাক্সি, ক্যাবও। দিল্লিতে ডিজেলের দামের রেকর্ড বৃদ্ধিতে মাথায় হাত পড়েছে মানুষের। আন্তর্জাতিক বাজারে অপরিশোধিত তেলের দাম এতটা কম থাকা সত্ত্বেও কী ভাবে পেট্রল ও ডিজেলের দাম ক্রমে আকাশছোঁয়া হয়ে চলেছে, তা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন দেশবাসী।

টানা ২১তম দিনে গত শনিবারও বাড়ে পেট্রল-ডিজেলের দাম। এ দিন পেট্রোলের দাম বেড়েছিল ২৫ পয়সা, ডিজেলের দাম বাড়ে ২১ পয়সা প্রতি লিটারে। সেই দামই অপরিবর্তিত ছিল রবিবার। কলকাতায় পেট্রোলের দাম ছিল লিটারে ৮২.০৫ টাকা, কলকাতায় ডিজেলের দাম লিটারে ছিল ৭৫.৫২ টাকা। দিল্লিতে পেট্রলের দাম দাঁড়ায় লিটারে ৮০.৩৮ টাকা এবং ডিজেলের দাম হয়েছিল লিটারে ৮০.৪০টাকা।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ