কলকাতা: যেটুকু বৃষ্টির ঘাটতি ছিল আষাঢ় শ্রাবনে তা এবার ভাদ্রতেই পুষিয়ে যাবে বলে আশা প্রকাশ করেছে আবহাওয়া দফতর। রবিবার থেকেই কলকাতার আকাশ ছিল মেঘলা। ভারি বৃষ্টি না হলেও দফায় দফায় হালকা বৃষ্টিতে ভিজেছে শহরবাসী। এদিকে সোমবার নতুন করে বৃষ্টির সম্ভাবনার কথা শোনাল আবহাওয়া দফতর।

আবহাওয়া অফিস সূত্রে জানা গিয়েছে, বঙ্গোপসাগরের উপরে তৈরি হওয়া নিম্মচাপের জেরে আগামী ২৪ ঘণ্টায় দক্ষিণবঙ্গে ভারী বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সেই সঙ্গে বুধবার থেকেই বঙ্গোপসাগরের উপরে থাকা নিম্নচাপটি সক্রিয় হয়ে উঠবে যার জেরে আপাতত বুধ, বৃহস্পতিবার পর্যন্ত বৃষ্টি চলবে বলে জানা গিয়েছে। কলকাতা, দক্ষিনবঙ্গের জেলা গুলিতে এবং পশ্চিমাঞ্চলের বৃষ্টির কথা শোনালেও আপাতত উত্তরবঙ্গে ভারী বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা নেই বলেই জানাচ্ছে আবহাওয়া দফতর।

এদিন সকালেই কালো মেঘে ঢাকে আকাশ। দিনে দুপুরে অন্ধকার নেমে আসে শহর কলকাতায়। আর তার কিছুক্ষণের মধ্যেই মুষলধারে বৃষ্টি নামে। কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলায় মুষলধারে এই বৃষ্টিপাত শুরু হয়। যার জেরে কলকাতার একাধিক জায়গা জলমগ্ন হয়ে পড়েছে বলে জানা গিয়েছে। যার ফলে শহরের বেশ কিছু জায়গায় তীব্র যানজট তৈরি হয়। বাংলা এবং ওডিশা উপকূলে নতুন করে একটি ঘুর্ণাবর্ত তৈরি হয়েছে। যার ফলে উপকূল সংলগ্ন জেলাগুলিতে ভারী বৃষ্টি হতে পারে বলে জানাচ্ছে আলিপুর আবহাওয়া দফতর।

এই ঘূর্ণাবর্তের জেরে সমুদ্র উত্তাল হতে পারে। আর সে কারণে মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যেতে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। যারা এই মুহূর্তে সমুদ্র উপকূলে রয়েছেন তাঁদেরকে দ্রুত নিরাপদ জায়গায় ফিরে আসার জন্যে হাওয়া অফিসের তরফে জানানো হয়েছে। জানা গিয়েছে, সন্ধ্যার পর থেকে কলকাতা সহ শহরতলিতে ভালো বৃষ্টি হতে পারে।