স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী কানহাইয়ালাল আগরওয়ালের হয়ে প্রচার করেছিলেন বাংলাদেশী অভিনেতা ফিরদৌস৷ এখানেই বিতর্ক দানা বাধে৷ এক বিদেশী কি করে এইরকম রাজনৈতি কর্মসূচিতে অংশ নিতে পারেন সেটা নিয়ে প্রশ্ন উঠছিল৷

প্রথমেই বিজেপি এর তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছিল। এবার তরুণ বাম নেতা শতরাপ ঘোষ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্দেশ্যে বলেন, “প্রচারের জন্য বাংলাদেশ থেকে অভিনেতা আনতে হচ্ছে। এবার ভোট দেওয়ার জন্য বাংলাদেশ থেকেই ভোটার আনতে হবে। কারণ দেশের ভোটাররা ওঁকে হাড়ে হাড়ে চিনে গেছে।”

এরপর, সিপিএম দলটা কংগ্রেসের কাছে বিক্রি হয়ে গেছে এই মন্তব্যের পাল্টা দিয়ে শতরূপ আরও বলেন, ” উনি দলের বিক্রি হওয়ার গল্প তো অনেক শোনালেন। কিন্তু ওঁর আগে বাংলার কোনও মুখ্যমন্ত্রী এভাবে চিটফান্ডের টাকায় বিক্রি হয়নি।

প্রসঙ্গত বাংলাদেশি অভিনেতা ফিরদৌসকে ব্ল্যাকলিস্টে ফেলেছে ভারত সরকার। তৃণমূলের প্রচারে থাকার অভিযোগে মঙ্গলবার তাঁর বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নিল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। ভিসার শর্ত লঙ্ঘন করার জন্যই তাঁর বিরুদ্ধে এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।