অ্যান্ড্রয়েড মোবাইল ব্যবহারকারীদের জন্য বিশেষ সতর্কবার্তা। প্লে-স্টোরে থাকা ১৭ টি অ্যাপ বিশেষ বিপাকে ফেলতে পারে আপনাকে। রিপোর্ট জানাচ্ছে, সাড়ে ৫ লাখের বেশি ডাউনলোড হয়েছে ওই অ্যাপগুলি, যা যথেষ্ট উদ্বেগজনক।

এই ১৭ টি অ্যাপ একদিকে যেমন প্লেস্টোর ইন্সটল করলে ফোনে জায়গা করে নেয়, অন্য একটি রিপোর্ট জানাচ্ছে বিভিন্ন অ্যাডের মাধ্যমেও অনেকে প্লে স্টোর থেকে এই অ্যাপ ডাউনলোড করে ফেলেন, ব্যাপারটি সঠিক না বুঝেই।

অনেক সময় এই ১৭ টি অ্যাপের বেশ কিছু অ্যাপ সরাসরি মোবাইলে প্রভাব ফেলে না। কিন্তু নানান অ্যাড অর্থাৎ বিজ্ঞাপন দেখিয়ে বিপাকে ফেলতে পারে আপনাকে। এই অ্যাডগুলি একেক সময় শ্লীলতার মাত্রা অতিক্রম করে যায় বলে অনেকে দাবি করেছে। এই বিজ্ঞাপনগুলি বেশিরভাগ সময় পপ-আপ বিজ্ঞাপন হওয়ায় তা স্ক্রিনে ফুটে ওঠে, যার জেরে লোক সমাজে অস্বস্তির মুখে পড়েন ব্যাবহারকারী। এছাড়া কোনও দরকারি কাজের সময় এই বিজ্ঞাপন আসার ফলেও বিরক্ত হন অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীরা ।

এক নজরে দেখে নিন কোনগুলি সেই অ্যাপ? আর এরমধ্যে আপনার ইন্সটল করা কোনও আপস নেই তো? তাহলে আর দেরি করবেন না, আজই সেগুলি আনইন্সটল করে ফেলুন-

(১) কার রেসিং ২০১৯, (২) 4কে ওয়ালপেপার (ব্যাকগ্রাউন্ড 4কে এইচ ডি), (৩) কিউ আর কোড রিডার অ্যান্ড বারকোড স্ক্যানার (৪) ফাইল ম্যানেজার প্রো – ম্যানেজ এসডি কার্ড/ এক্সপ্লোরার (৫) ভিএমওডব্লু সিটি : স্পিড রেসিং থ্রি ডি (৬) বারকোড স্ক্যানার (৭) স্ক্রিন সিস্টেম মিররিং (৮) কিউআর কোড – স্ক্যান অ্যান্ড রিড অ্যা বারকোড (৯) পিরিয়ড ট্রাকার – সাইকেল ওভিউলেশন উমেনস (১০) কিউআর অ্যান্ড বারকোড স্ক্যান রিডার (১১) ওয়ালপেপারস ফোর কে, ব্যাকগ্রাউন্ডস এইচডি (১২) ট্রান্সফার ডেটা স্মার্ট (১৩) এক্সপ্লোরার ফাইল ম্যানেজার (১৪) টুডে ওয়েদার র‍্যাডার (১৫) মবনেট ডট আইও: বিগ ফিস ফ্রেঞ্জি (১৬) ক্লক এলইডি

এই অ্যাপগুলি পরপর নানান অ্যাড দেখাতে থাকে। সাধারণত, একটি সিস্টেমের মাধ্যমে এই অ্যাপগুলি ঠিক করে কখন কখন কোন বিজ্ঞাপন ব্যাভারকাররেকে দেখাবে। সাধারণত, যখন মোবাইলের মালিক ফোনটিকে আনলক করতে সুইচ ক্লিক করে তখনই এই বিজ্ঞাপবগুলি ঢোকে। ইতিমধ্যেই এই অ্যাপগুলি প্লে স্টোর থেকে সরিয়ে দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়ে গিয়েছে বলে জানা গিয়েছে।