অভিষেক কোলে: মাত্র ১৭ বছর বয়সে আইপিএলের বৃত্তে ঢুকে পড়া যদি চমক হয়, তবে মুম্বই ইন্ডিয়ান্স ও কলকতা নাইট রাইডার্সের বিরুদ্ধে দু’টি অনবদ্য ইনিংসে দলের জয়ে ভূমিকা নেওয়া কম চমকপ্রদ নয়৷ জয়পুরের পর ইডেন, ঠিক সেই কাজটাই করে দেখালেন রিয়ান পরাগ৷

সব থেকে কমবয়সে আইপিএল অভিষেককারী ক্রিকেটারদের তালিকায় তৃতীয় স্থানে থাকা রিয়ান চেন্নাই সুপার কিংসের বিরুদ্ধে আত্মপ্রকাশে সাত নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ১৪ বলে ১৬ রান করেছিলেন৷ পরের ম্যাচেই মু্ম্বইয়ের বিরুদ্ধে ২৯ বলে ৪৩ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলে দূর্ভাগ্যজনক রানআউট হন৷ দিল্লির বিরুদ্ধে ৪ রানের বেশি সংগ্রহ করতে না পারলেও বল হাতে একটি উইকেট নেন তিনি৷ তার পরেই ইডেনের ম্যাচ ঘোরানো ৪৭ রানের ইনিংস৷

আরও পড়ুন: কাম ব্যাকে ইডেন কাঁপালেন বরুণ অ্যারন

ঘরের মাঠে মুম্বইয়ের বিরুদ্ধে ব্যাট করার সময় পরিস্থিতি অতটা প্রতিকূল ছিল না৷ অপর প্রান্তে স্টিভ স্মিথ থাকায় কিশোর রিয়ানের পক্ষে ব্যাট করা সহয় হয়ে দাঁড়িয়েছিল৷ ইডেনে দল যখন পর পর হেভিওয়েটদের উইকেট হারিয়ে কোণঠাসা, সেই অবস্থায় শ্রেয়স গোপাল ও জোফ্রা আর্চারের সঙ্গে জুটি বেঁধে জয়ের মঞ্চ তৈরি করেন পরাগ৷ যদিও দু’বারই ম্যাচের সেরার পুরস্কার ছিনিয়ে নিয়ে যান অন্য কেউ৷ তবে সহনায়ক হিসাবে রিয়ানের ভূমিকা অস্বীকার করার জায়গা নেই৷

এখন প্রশ্ন হল, কে এই রিয়ান পরাগ? ভারতীয় ক্রিকেটের ভবিষ্যৎ প্রজন্মের এই তারকাকে চিনে নেওয়া যাক৷ রিয়ান অসমের প্রথম ক্রিকেটার, যিনি আইপিএল খেলার সুযোগ পান৷ বাংলার প্রয়াস রায়বর্মণ ও আফগান তারকা মুজিব উর রহমানের পর সব থেকে কম বয়সে আইপিএল অভিষেক হয় তাঁর৷ তাও চেন্নাই সুপার কিংসের মতো আইপিএলের সব থেকে সফল দলের বিরুদ্ধে৷

আরও পড়ুন: মেয়েদের মিনি আইপিএলের দল ঘোষিত

রিয়ানের মা মিঠু একজন জাতীয় চ্যাম্পিয়ন সাঁতারু৷ তবে রিয়ান তাঁর বাবার দেখানো পথে হাঁটার সিদ্ধান্ত নেন৷ রিয়ানের বাবা পরাগ দাস ভারতের একজন প্রাক্তন প্রথম শ্রেনির ক্রিকেটার, যিনি অসম ছাড়াও রেলওয়েজের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করেছেন৷ বাবার থ্রো-ডাউনে নক করেই ক্রিকেটের পাঠ নেওয়া শুরু করেছিলেন রিয়ান৷

১৪ বছর বয়সে কণিষ্ঠ ভারতীয় হিসাবে ফার্স্ট ক্লাস ক্রিকেটে আত্মপ্রকাশ ঘটাতে পারতেন রিয়ান৷ তবে সেবার কোচের সঙ্গে নির্বাচকরা একমত হতে না পারায় রিয়ানের অসমের জার্সি গায়ে চাপানো সম্ভব হয়নি৷ অবশেষে অনূর্ধ্ব-১৯ ভারতীয় দলে ঢুকে পড়ার পর অসমের সিনিয়র দলে জায়গা মেলে তাঁর৷ এখনও পর্যন্ত ৪টি ফার্স্ট ক্লাস, ১৫টি লিস্ট-এ ও ১৪টি টি-২০ ম্যাচ খেলেছেন রিয়ান৷

আরও পড়ুন: অভিজ্ঞ বরুণ ও কিশোর রিয়ানে বাজিমাৎ রাজস্থানের

কাকতলীয় বিষয় হল, রিয়ানের বাবা পরাগ দাস ধোনির সঙ্গে এবং ধোনির বিরুদ্ধে ক্রিকেট খেলেছেন৷ রিয়ানের আইপিএল অভিষেকে সেই ধোনিই ছিলেন তাঁর প্রতিপক্ষ অধিনায়ক৷