রবীন্দ্রনাথ প্রামানিক(প্রত্যক্ষদর্শী):  বিকেল সাড়ে চারটে হবে তখন। চোখের সামনেই দেখলাম মাঝেরহাট ব্রিজটাকে ভেঙে পড়তে। রোজ দিনের মতোই যাচ্ছিলাম নিউ আলিপুরে। ওখানের সারদা কন্যা বিদ্যাপীঠে পড়ে আমার দুই মেয়ে। ওদের স্কুল থেকে আনতে রোজ এই সময়েই যায় ওই ব্রিজের নিচ দিয়েই।

আমি মহেশতলার বাসিন্দা। আকরা থেকে ট্রেনে করে যাই নিউ আলিপুর। এ দিন মাঝেরহাট স্টেশনে দাঁড়ানো ছিল আপ বজবজ শিয়ালদহ লোকাল। হঠাৎ করে শুনতে পেলাম বিকট একটা শব্দ। ট্রেনের দরজা থেকে বাইরে দেখি ভেঙে পড়েছে নীল-সাদা রঙ করা ব্রীজটা।

মেয়েদের স্কুলে যাতায়াত ছাড়াও বিভিন্ন সময়ে যেতে হয় ওই ব্রিজের নিচ দিয়ে। বড় বিপদ থেকে যে রক্ষা পেয়েছি তা বলাই বাহুল্য। এখনও অক্ষত রয়েছি।

আমার বাড়ির সামনেই বজবজ ট্রাঙ্ক রোডের উপরে তৈরি হচ্ছে দেশের সব থেকে বড় ফ্লাইওভার। সবসময় ভাগ্য এমন সঙ্গ দেবে তো? চিন্তা থাকছেই।

দুই মেয়েকে স্কুল থেকে নিয়ে বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা হয়েছি। আটকে রয়েছি রাস্তায়। ট্রেন চলাচল বন্ধ। রেল লাইন ধরেই হাঁটছি। জানি না কখন পৌঁছাব!

Proshno Onek II First Episode II Kolorob TV