শ্রীনগর: গোয়েন্দা রিপোর্টে সতর্ক জম্মু কাশ্মীর৷ বুরহান ওয়ানির মৃত্যুবার্ষিকীতে নতুন করে সন্ত্রাস ছড়াতে পারে উপত্যকায়৷ এমনই সন্দেহ করছেন গোয়েন্দারা৷ তথ্য বলছে হিজবুল মুজাহিদিন কমাণ্ডার বুরহান ওয়ানির মৃত্যুবার্ষিকীতে হামলা চালাবে ওই জঙ্গি সংগঠন৷ ওয়ানির মৃত্যুর বদলা নিতেই হতে পারে হামলা৷

২০১৬ সালের ৮ই জুলাই৷ অনন্তনাগ জেলার কোকেরনাগে নিকেশ করা গিয়েছিল এই কুখ্যাত জঙ্গিকে৷ গোপন সূত্রে খবর পেয়ে তল্লাশি চালাতে গিয়েই সেনাবাহিনীর হাতে নিকেশ হয় বুরহান ওয়ানি৷ এই ঘটনার পর তিন বছর কেটে গেলেও, হামলার আশঙ্কা যায়নি৷

বুরহান ওয়ানির মৃত্যুর বদলায় পুলওয়ামায় সেনাবাহিনীর ওপর হামলার ছক কষেছে জঙ্গিরা৷ এমনই খবর রয়েছে গোয়েন্দাদের কাছে৷ জঙ্গিদের নিশানায় রয়েছে পুলওয়ামার গালান্ডের চার লেনের ব্রিজ থেকে অবন্তীপোরার চেচিকোটের টোল প্লাজা পর্যন্ত রাস্তায় সেনাবাহিনীর কনভয়ের আনাগোনা৷ ইতিমধ্যেই নাকি হামলা চালানোর উদ্দেশ্যে পাকিস্তান থেকে ৬-৮ জন জঙ্গি দল পুলওয়ামায় ঢুকে পড়েছে৷ এই গ্রুপে রয়েছে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত স্নাইপার৷ আপাতত ওয়ানির নিজের এলাকা ত্রালের কাছাকাছিই ঘাঁটি গেড়েছে এই জঙ্গি দল৷

আরও পড়ুন : মুসলমানদের ভারতের আইন জেনে মজবুত হওয়ার পরামর্শ ওয়াইসির

উল্লেখ্য উপত্যকায় একসময় পুলিশদের ত্রাস ছিল এই বুরহান ওয়ানি৷ ২২বছরের এই যুবকের মাথা কেটে দিতে পারলেই দশ লক্ষ টাকা পুরষ্কার দেওয়া হবে৷ এমনই একটি ফতোয়াও জারি হয়েছিল এলাকা জুড়ে৷

২০১৮ সালেও এই সময় কাশ্মীর জুড়ে সতর্কতা জারি করা হয়েছিল৷ উপত্যকা জুড়ে প্রায় ২১ হাজার আধা সামরিক বাহিনী মোতায়েন করা হয়৷ কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হয় অমরনাথ তীর্থযাত্রীদের জন্যও৷ প্রতিটি চেকপোস্টে প্রতিটি গাড়িতে চলে চিরুণি তল্লাশি৷

আইজিপি মুন্নির খান জানান, উপত্যকায় যাতে কোনওরকম আইনশৃঙ্খলা বিঘ্নিত না হয়৷ তার জন্যই জারি হয়েছে এই কড়া নিরাপত্তা৷ ইন্টারনেটের মাধ্যমে ছড়িয়ে ভুয়ো উত্তেজনা সৃষ্টি করার চেষ্টা চলে৷ যার জেরে বন্ধ করে দেওয়া হয় ইন্টারনেট পরিষেবা৷ এর পাশাপাশিই বেশ কিছু সোশ্যাল সাইটের উপরও জারি হয় নিষেধাজ্ঞা৷