শ্রীনগরঃ জম্মু কাশ্মীরের পুঞ্চে ফের ভারতীয় সেনার সাফল্য। পুঞ্চে উদ্ধার হল জঙ্গিদের গোপন ঘাঁটি। গোপন সূত্রে খবর পেয়ে ভারতীয় সেনা ও জম্মু কাশ্মীর পুলিশ একটি যৌথ তল্লাসি অভিযান শুরু করে।

পুঞ্চ জেলার লোরান বর্ডার বেল্টের খাড়া গালি এলাকায় এই গোপন আস্তানা উদ্ধার হয়। এখান থেকেই ১৭টি হ্যাণ্ড গ্রেনেড উদ্ধার করেছে সেনা। প্রতিটি গ্রেনেডই চিনের তৈরি। গ্রেনেডের গায়ে লেখা সেই ছাপ তার প্রমাণ। জম্মু কাশ্মীর পুলিশের এক শীর্ষ স্থানীয় আধিকারিক জানিয়েছেন গ্রেনেডগুলি ৩-৪ মাসের মধ্যে তৈরি করা। শুক্রবার সকালেই এই গোপন ঘাঁটি ও গ্রেনেডগুলি উদ্ধার করা হয়।

তবে ভারত পাকিস্তান সীমান্তে পাক সেনার গুলি বর্ষণ অব্যাহত। মঙ্গলবার সকালে জম্মু ও কাশ্মীরের শাহপুর ও কিরণি সেক্টরে বিশাল গুলিবর্ষণ চালায় পাক সেনা। তাঁর উত্তরে ভারত শক্ত হাতে উত্তর দিয়েছে পাকিস্তানকে। হঠাত এই হামলার যোগ্য জবাব দিয়েছে ভারতীয় সেনা।

শেষ তিনদিনে এটি তিন নম্বর ঘটনা। রবিবার পাকিস্তানি সেনারা নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছে মেন্ধার এবং বালাকোট সেক্টরে আক্রমণ চালায়। এই ঘটনায় চারজন নাগরিক, এদের মধ্যে তিনজন মহিলা গুরুতরভাবে আহত হন। শনিবার সকালের দিকে শাহপুর এবং কিরণি সেক্টরেই গুলিবর্ষণ করে।

বিদেশমন্ত্রক জানাচ্ছে, চলতি বছরে দু’হাজারেরও বেশি বার যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করেছে পাকিস্তান। নিশানা করেছে সাধারণ মানুষকে। অথচ ভারতের বিরুদ্ধেই মানবাধিকার লঙ্ঘনের কালি ছেটাচ্ছে পাকিস্তান। প্রায় একুশ জন সাধারণের মৃত্যু হয়েছে, এমনটাই জানাচ্ছে ভারতের বিদেশ মন্ত্রক। পাশাপাশি পাকিস্তানের একাধিক অনুপ্রবেশ ও যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘনের কথাও উল্লেখ করা হয় বিদেশমন্ত্রকের তরফে।