হায়দরাবাদ: আত্মবিশ্বাস ছিল প্রথম থেকেই। প্রচারের সময় তো ছিলই। ভোটের দিন তা আরও বেশি করে দেখা গেল দলপতির গলায়। সাফ জানিয়ে দিলেন যে নির্বাচনে লড়াই করা সব প্রার্থীরাই জিতবে। শুক্রবার ভোট দিয়ে বুথ থেকে বেরিয়ে এমনই মন্তব্য করেছেন আসাদুদ্দিন ওয়াইসি।

আরও পড়ুন- হিন্দুত্বে ভিড়েছেন রাহুল, দল ছাড়ার হুমকি কংগ্রেসের মুসলিম নেতাদের

এদিনই অনুষ্ঠিত হয়েছে বিধানসভা নির্বাচনের ভোট গ্রহণ। রাজেন্দ্রনগর বিধানসভা কেন্দ্রের ভোটার হায়দরাবাদের সাংসদ আসাদুদ্দিন ওয়াইসি এদিন ভোট দিয়ে বেরিয়ে বলেন, “জয়ের বিষয়ে আমি আশাবাদী। আমাদের সব প্রার্থীরা জিতবেই এটা আমি নিশ্চিত।”

আরও পড়ুন- বিজেপির রথযাত্রায় সিঙ্গল বেঞ্চের নির্দেশ খারিজ ডিভিশন বেঞ্চের

এআইএমআইএম দলের প্রধানের এই আত্মবিশ্বাস থেকেই আশংকা বাড়ছে। কারণ সকল এআইএমআইএম প্রার্থী জিতে গেলে কোনও মুসলিম কংগ্রেস প্রার্থী জিততে পারবে না। বিধানসভায় আর কংগ্রেসের কোনও মুসলিম সদস্য থাকবে না।

আরও পড়ুন- বাংলাদেশি মুসলিমদের বিতাড়ন, হিন্দু শরনার্থীদের আশ্রয়ের আশ্বাস দিলীপের

১১৯ আসনের তেলেঙ্গানা বিধানসভায় মাত্র আটটি কেন্দ্রে প্রার্থী দিয়েছে আসাদুদ্দিনের এআইএমআইএম। সবগুলি কেন্দ্রই হায়দরাবাদে অবস্থিত। ওই এলাকাতেই প্রার্থী দিয়েছে কংগ্রেস। হাত শিবিরের মুসলিম প্রার্থী সংখ্যা মাত্র তিন। এই নিয়ে দলের অন্দরে কোন্দল কিছু কম হয়নি। কমপক্ষে ১৪ জন মুসলিম প্রার্থী দেওয়ার দাবি জানানো হয়েছিল হাইকম্যান্ডের কাছে।

আরও পড়ুন- বাংলায় ২৩ টি জনসভা করেছি, কোথায় দাঙ্গা হয়েছে দেখান মমতা: অমিত শাহ

হায়দরাবাদ ছাড়া রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে মুসলিম প্রার্থী দেওয়ার দাবি করেছিল কংগ্রেসের মুসলিম নেতারা। কারণ হায়দরাবাদে মুসলিম অধ্যুষিত এলাকায় এআইএমআইএম দলের সংগঠন বেশ মজবুত। সেখানে কংগ্রেসের জেতার আশা ক্ষীণ।

আরও পড়ুন- ইডির তলবে সিজিও কমপ্লেক্সে বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়, সঙ্গে বন্ধু শোভন

এই আশংকার কথা অনেক আগেই জানিয়েছিলেন কংগ্রেস নেতা আবিদ রাসুল খান। এবার তেলেঙ্গানায় কংগ্রেসের আর কোনও মুসলিম বিধায়ক থাকবে না বলেও দাবি করেছেন তিনি। বিষয়টি নিয়ে রাহুল গান্ধীর সঙ্গে দেখা করে কথা বলতে চাইলেও সভাপতি সময় দেননি বলে অভিযোগ।

আরও পড়ুন- হিন্দুত্বে ভিড়েছেন রাহুল, দল ছাড়ার হুমকি কংগ্রেসের মুসলিম নেতাদের

ঠিক কেমন হবে তেলেঙ্গাআ বিধানসভার চিত্র? তা জানা যাবে আরও চার দিন পরে। চলতি মাসের ১১ তারিখে ওই রাজ্যের ফল ঘোষণা হওয়ার কথা রয়েছে।