তারাপীঠে মা তারা পূজিত হচ্ছেন।

কলকাতাঃ  তারাপীঠে মা তারা ছাড়া অন্য কোনও দেবদেবীর পুজো হয় না বললেই চলে। এই নিয়মটির ব্যতিক্রম দুর্গা পুজোতেও হয় না৷ তবে প্রতিবছর শারদীয়াতে তন্ত্র মতে মা তারাকেই দুর্গা রূপে পুজো করা হয়৷ পুজো চারদিনই মা তারাকে রাজ রাজেশ্বরীর বেশে সাজানো হয়৷ পুজোর চারটে দিন অর্থাৎ সপ্তমী, অস্টমী, নবমী এবং দশমীতে তারাপীঠ মন্দিরের মা তারা পূজিতা হন দেবী দুর্গা রূপে৷

শুধু তাই নয়, কখনও জগদ্ধাত্রী, কখনও মা অন্নপূর্ণা আবার কখনও বা জগন্নাথ রূপেও পুজো করা হয় মা তারাকে৷

তবে পুজোর চারদিন দুর্গা পুজোর রীতি মেনেই মন্দিরে পুজো হয়। রীতি মেনেই সপ্তমীর দিন পুজোর শুভারম্ভ হয়। অষ্টমীর দিন মায়ের অষ্টমী পুজো থেকে শুরু করে সন্ধি পুজো সবই নিয়ম মেনেই করা হয়৷ আবার নবমীর দিন এখানে প্রথা মেনে পাঁঠা বলিও করা হয়৷ নবমীর দিন মাকে বিশেষ ভোগ নিবেদন করা হয়। মায়ের ভোগের থালায় থাকে, পোলাও, অন্ন, খিচুরি, পাঁচ রকমের ভাজা, দুই রকমের মাছ ভাজা, বলির মাংস ও কারণসুধা৷

দশমীর দিন সিঁদুর দিয়ে মাকে সাজানো হয়৷ পান ও সুপারি দিয়ে মাকে বরণও করা হয়। মা তারার এই ভিন্ন রূপ দেখার জন্য দূর-দূরান্ত থেকে ভিড় জমান কয়েক হাজার পুণ্যার্থী।

মন্দির কতৃপক্ষের বক্তব্য, শারদীয়ার চার দিনই মা তারা দেবী দুর্গা রূপে পূজিতা হন৷ মায়ের ভিন্ন রূপ দেখার জন্য দূর-দূরান্ত থেকে হাজার হাজার পূণ্যার্থী ভিড় জমান তারাপীঠে। অষ্টমীর দিন মায়ের পুষ্পাজ্ঞলি দেওয়ার জন্যে বহু মানুষ আসেন এখানে।