স্টাফ রিপোর্টার, বাঁকুড়া: বালি খাদানের ঘটনাকে কেন্দ্র করে রণক্ষেত্রের চেহারা নিল বাঁকুড়ার রাইপুরের সিমলি গ্রাম। উত্তেজিত গ্রামবাসীরা বালি খাদান মালিকের অফিসে ভাঙ্গচুর চালায় বলে অভিযোগ। এই ঘটনায় পুলিশ ও গ্রামবাসী দুই পক্ষেরই কয়েক জন কমবেশী আহত বলে খবর।

গ্রামবাসীদের তরফে দাবি করা হয়েছে, গত ২২ মে থেকে ফের এই বালি খাদান চালু হয়েছে। গ্রামের মেয়েরা নদীতে স্নান করতে গেলে বালি খাদানের সঙ্গে যুক্ত কর্মীদের কয়েকজন তাদের ছবি মোবাইলে তোলে। এই ঘটনার প্রতিবাদ তারা জানান। পরে পুলিশ এসে গ্রামবাসীদের উপর চড়াও হয় বলে অভিযোগ।

এমনকি মহিলা পুলিশ কর্মী উপস্থিত থাকা সত্বেও পুরুষ পুলিশ কর্মীরা গ্রামের মেয়েদের মারধোর করে বলে অভিযোগ। পরিস্থিতি আরো উত্তপ্ত হয়ে উঠলে খাতড়ার এসডিপিও বিবেক ভার্মার নেতৃত্বে বিশাল পুলিশ বাহিনী গ্রামে পৌঁছায়।

উপস্থিত হন স্থানীয় বিধায়ক বীরেন্দ্রনাথ টুডু ও পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি রাজকুমার সিংহ। তারা উত্তেজিত গ্রামবাসীদের সঙ্গে আলোচনা করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।