মুম্বই: বলিউডে পা রাখার অনেক আগে থেকেই সানি লিওন নামটা ভারতবাসীর কাছে বেশ পরিচিত ছিল। নীল ছবির দুনিয়া থেকে আসা এই সুন্দরীকে ঘিরে সেই সময় ছিল তুমুল কৌতুহল। বলিউডে ছবি করার আগেই টেলিভিশন রিয়েলিটি শো বিগবসে আবির্ভাব হয় তাঁর। আর তার কিছুদিন পরেই ভাট ক্যাম্পের ছবি ‘জিসম ২’ তে অভিনয় করেন সানি লিওন। কিন্তু জানেন কি, বলিউডে কিন্তু আরো অনেক আগেই সানির আসার কথা ছিল।

‘জিসম টু’ ছবিতে অভিনয় করে সৌন্দর্য দিয়ে ঝড় তুলেছিলেন সানি লিওন। কিন্তু এই ছবির ৭ বছর আগেই বলিউডে তাঁর পা রাখার কথা ছিল। ২০০৫ সালে মুক্তি পেয়েছিল কুনাল খেমু অভিনীত ছবি ‘কলিযুগ’। সেই ছবিতে প্রথমবার নজর কেড়েছিলেন কুনাল খেমু। সেই ছবিতেই সানির অভিনয় করার কথা ছিল একটি ক্যামিও চরিত্রে। সংবাদমাধ্যম লাইভ মিন্টের কাছে সাক্ষাৎকারে এমনই জানিয়েছিলেন সানি লিওন।

সেই সময়ে তিনি এই ছবির জন্য পারিশ্রমিক আশা করেছিলেন ১০ লক্ষ ডলার। কিন্তু ছবির নির্মাতা সানির এত বড় অঙ্কের পারিশ্রমিক শুনে পিছিয়ে আসেন। সানি বলছেন সেই সময় তাঁর পেশা ছেড়ে ভারতে চলে আসা বেশ ঝুঁকিপূর্ণ ছিল। কারণ তিনি ভেবেছিলেন কিছুদিন পরে তিনি এই ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে আসবেন এবং নিজের ব্র্যান্ড তৈরি করবেন।

আর সেই স্বপ্ন কিন্তু পূরণ করেছেন সানি লিওন। পূজা ভাটের ছবি অভিনয় করে বলিউডে ঝড় তুলেছিলেন সেই সময়। আর তারপরে আরও বেশ কয়েকটি ছবিতে অভিনয় করেন তিনি। সঙ্গে স্বামী ড্যানিয়েল এর সঙ্গে সুখে সংসার করছেন অভিনেত্রী। আর স্বপ্ন অনুযায়ী নিজের ব্রান্ড তৈরি করেছেন যার নাম স্টারস্ট্রাক।

২০১৯-এ রাগিনী এম এম এস রিটার্নস টিভি শোতে শেষ অভিনয় করেছেন সানি লিওন। এছাড়াও অর্জুন পাতিয়ালা ছবিতে দেখা গিয়েছিল তাকে। এই ছবিতে অভিনয় করেছেন দিলজিৎ দোসাঞ্জ, কৃতি সানন, বরুন শর্মা। এই মুহূর্তে সানি লিওনের হাতে রয়েছে বেশকিছু টিভি এবং ওয়েব সিরিজের শো।

পপ্রশ্ন অনেক: একাদশ পর্ব

লকডাউনে গৃহবন্দি শিশুরা। অভিভাবকদের জন্য টিপস দিচ্ছেন মনোরোগ বিশেষজ্ঞ।