কলকাতা:  ইতিমধ্যে বাংলা থেকে বিদায় নিয়েছে বর্ষা। কিন্তু তার মধ্যেও মাঝে মধ্যে কালো করে আকাশ। কখনও হালকা থেকে ভারী বৃষ্টিতে ভিজছে বাংলা। স্থানীয়ভাবে তৈরি হওয়া মেঘের ফলে এই বৃষ্টি হচ্ছে বলে ইতিমধ্যে আলিপুর হাওয়া অফিসের তরফে জানানো হয়। কিন্তু এরই মধ্যে অশনি সঙ্কেত শোনাচ্ছেন আবহাওয়া দফতর।

আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, নতুন করে একটি ঘুর্ণাবর্ত তৈরি হয়েছে। আরব সাগরের উপর এই ঘুর্ণাবর্তটি তৈরি হয়েছে। এই মুহূর্তে এটির অবস্থান রয়েছে কন্যাকুমারিকাতে। যদিও কোনদিকে এই ঘুর্ণাবর্তের অভিমুখ হয় সেদিকেই এখন কড়া নজর রাখছেন আবহাওয়াবিদরা। তবে হাওয়া অফিস মনে করছে যে এর ফলে উত্তরের বেশ কিছু জায়গায় বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

শুধু তাই নয়, আরব সাগরের উপর তৈরি হওয়া এই ঘুর্ণাবর্তের ফলে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে। যা আগামী ৪৮ ঘন্টা এই পরিস্থিতি বজায় থাকবে বলেই জানাচ্ছেন আবহাওয়াবিদরা। অন্যদিকে এর ফলে মহারাষ্ট্র, কর্ণাটক, কেরালা, লাক্ষাদ্বীপে ঝড় বৃষ্টি হতে পারে। মৌসমভবন জানাচ্ছে, ঘন্টায় ৪৫ থেকে ৫৫ কিলোমিটার বেগে হাওয়া বইতে পারে এই সমস্ত জায়গায়। হলুদ সতর্কতা জারি থাকছে কোল্লাম, আলাপ্পুঝা, কোট্টায়াম, ইডুক্কি, কোঝিকোড়। ইতিমধ্যে সেখানকার বেশ কয়েকটি স্কুলে ছুটি দিয়ে দেওয়া হয়েছে। পরিস্থিতি বলছে, আগামী কয়েক ঘন্টায় এই সমস্ত অঞ্চলে ঝড় বৃষ্টির পরিমাণ বাড়তে পারে।